ফের মোনাকোর বিপক্ষে পিএসজির হার

8

বার্সেলোনাকে তাদেরই মাঠে উড়িয়ে দেওয়া পিএসজিকে মাটিতে নামিয়ে এনেছে মোনাকো। দুই অর্ধের দুই গোলে লিগ ওয়ানে আবার ফরাসি চ্যাম্পিয়নদের হারিয়েছে দলটি। প্রতিপক্ষের মাঠে রোববার রাতে ২-০ গোলে জিতেছে মোনাকো। সোফিয়ানে দিয়ুপ সফরকারীদের এগিয়ে নেওয়ার পর ব্যবধান দ্বিগুণ করেন গিসের্মো মারিপান। গত নভেম্বরে দুই দলের প্রথম দেখায় ঘরের মাঠে ৩-২ গোলে জিতেছিল মোনাকো। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোর প্রথম লেগে গত সপ্তাহে বার্সেলোনাকে ৪-১ গোলে হারানো পিএসজি বল দখল ও আক্রমণে অনেক এগিয়ে ছিল। কিন্তু ভাঙতে পারেনি মোনাকোর জমাট রক্ষণ।

কাম্প নউয়ে হ্যাটট্রিক করা কিলিয়ান এমবাপে নিজের পুরোনো দলের বিপক্ষে ছিলেন বিবর্ণ। নেইমার, আনহেল দি মারিয়ার অভাব প্রবলভাবেই অনুভব করেছে পিএসজি। মাউরো ইকার্দি, মোইজে কিনরা ছিলেন নিজেদের ছায়া হয়ে। ষষ্ঠ মিনিটে এগিয়ে যায় মোনাকো। বাঁ দিক থেকে কাইও হেনরিকের ক্রসে হেডে রুবেন আগুইলার খুঁজে নেন দিয়ুপকে। খুব কাছ থেকে হেডে বাকিটা সারেন ফরাসি এই মিডফিল্ডার। শুরুতেই পিছিয়ে পড়া পিএসজি পারেনি ঘুরে দাঁড়াতে। প্রথমার্ধে তিন চেষ্টার একটিও লক্ষ্যে রাখতে পারেনি স্বাগতিকরা। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই ব্যবধান বাড়ায় মোনাকো।

ডি-বক্সে আলগা বল পেয়ে ডান পায়ের শটে জাল খুঁজে নেন মারিপান। ৬০তম মিনিটে লক্ষ্যে প্রথম শট রাখতে পারে পিএসজি। কিনের শট ফিরিয়ে দেন মোনাকো গোলরক্ষক। দুই মিনিট পর হেনরিকের ক্রসে খুব কাছ থেকে হেড লক্ষ্যে রাখতে পারেননি সফরকারীদের কেভিন ভোলান্দ। ৭৭তম মিনিটে ম্যাচে পিএসজির সেরা সুযোগ হাতছাড়া করেন কিন। গোলরক্ষককে একা পেয়েও বাইরে মারেন এই ইটালিয়ান ফরোয়ার্ড। বাকি সময়েও জাল অক্ষত রেখে দারুণ এক জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে মোনাকো। ২৬ ম্যাচে ৫৪ পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরেই রয়ে গেল পিএসজি। ৫২ পয়েন্ট নিয়ে চার নম্বরে মোনাকো। ৫৮ পয়েন্ট নিয়ে চূড়ায় লিল। ৫৫ পয়েন্ট নিয়ে দুই নম্বরে অলিম্পিক লিঁও।