চাঁপাইনবাবগঞ্জে নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল বিক্রির অপরাধে ২ ব্যবসায়ীর কারাদন্ড

3

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলার বিভিন্ন হাটবাজার ও মৎস্য আড়তে অভিযান চালিয়ে নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল বিক্রির অপরাধে ২ ব্যবসায়ীকে কারাদন্ড দেয়া হয়েছে। মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযানের অংশ হিসেবে শনিবার সকালে বটতলাহাট থেকে ১০০টি নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়। অভিযানে নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল বিক্রির দায়ে ২ ব্যবসায়ীকে ১ বছর করে কারাদন্ড প্রদান করেন সদর উপজেলার নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নাজমুল ইসলাম সরকার।
কারাদন্ড প্রাপ্তরা হলেন- চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভার শঙ্করবাটী এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে আব্দুল আলিম ও একই এলাকার মৃত ইয়াসিন আলীর ছেলে হোসেন আলী।
অভিযানকালে আরো উপস্থিত ছিলেন, সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মাসুদ রানা, ক্ষেত্র সহকারী সুকুমার রায়সহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যবৃন্দ।
সিনিয়র সদর উপজেলার মৎস্য কর্মকর্তা মাসুদ রানা জানান, অভিযানে বাজারগুলোতে কাউকে ইলিশ মাছ বিক্রয় করতে দেখা না গেলেও ২টি দোকান হতে নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল পাওয়া যায়। যার দৈর্ঘ্য প্রায় ২০ হাজার মিটার এবং মূল্য প্রায় ৪ লাখ টাকা। এ সময় মাছ ব্যবসায়ীদের মাঝে সচেতনতা বাড়াতে মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযান-২০২০ সফল করতে লিফলেট বিতরণ করা হয়।
তিনি আরো জানান, মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযান গত ১৪ অক্টোবর থেকে শুরু হয়েছে। যা চলবে আগমী ৪ নভেম্বর পর্যন্ত। এই ২২ দিন নদী থেকে ইলিশ আহরণ, মজুত, পরিবহন, ক্রয়-বিক্রয় আইনত দন্ডনীয় অপরাধ। মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযান সফল করতে এ ধরনের অভিযান আগামীতে অব্যাহত থাকবে বলেও জানান তিনি।