প্রবীণদের কল্যাণ নিশ্চিত করার তাগিদ

20

প্রবীণ জনগোষ্ঠীর অধিকার ও নিরাপত্তা নিশ্চিতে প্রবীণ আইন প্রণয়ন ও সামাজিক সুরক্ষার বলয় বৃদ্ধির দাবি জানানো হয়েছে। বিশ্ব প্রবীণ দিবস রবিবার প্রবীণ অধিকার মঞ্চ, বাংলাদেশ কর্তৃক আয়োজিত ওয়েবিনারে এসব প্রস্তাবনা উঠে আসে।
উল্লেখ্য, ‘বৈশ্বিক মহামারির বার্তা-প্রবীণদের সেবায় নতুন মাত্রা’ প্রতিপাদ্যকে সামনে নিয়ে গত ১ অক্টোবর দিবসটি বিশ্বব্যাপী পালিত হয়।
প্রবীণ অধিকার মঞ্চের চেয়ারম্যান ড. কাজী খলীকুজ্জমান আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ওয়েবিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আশরাফ আলী খান খসরু এমপি।
প্রতিমন্ত্রী আশরাফ আলী খান খসরু বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশের মোট জনসংখ্যার ৭-৯ শতাংশ প্রবীণ হিসেবে গণনা করা হচ্ছে এবং মানুষের গড় আয়ু বৃদ্ধির সাথে সাথে প্রবীণদের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। প্রবীণদের জন্য সরকার গৃহীত নানা পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, বর্তমানে ৪৪ লাখ প্রবীণকে বয়স্ক ভাতার আওতায় নিয়ে আসা হয়েছে এবং বিগত ২০১৯-২০ অর্থবছরে শুধু বয়স্ক ভাতা বাবদ সরকারের বরাদ্দ ছিল ২ হাজার ৬২০ কোটি টাকা। করোনাকালীন প্রবীণদের দুর্ভোগের বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে আরো ১১২টি উপজেলায় ৫ লাখ প্রবীণের জন্য ৩০০ কোটি টাকা বয়স্ক-ভাতা প্রদানের জন্য বরাদ্দ রাখা হয়েছে যা পর্যায়ক্রমে বাংলাদেশের প্রতিটি উপজেলায় চালু হবে বলে তিনি জানান। এ সময় তিনি শুধুমাত্র সরকারের ওপর নির্ভরশীল না থেকে প্রবীণদের অবস্থানের উন্নয়নে সবাইকে স্ব স্ব অবস্থান থেকে এগিয়ে আসার জন্য আহ্বান জানান।
সভাপতির বক্তব্যে পিকেএসএফের চেয়ারম্যান ড. কাজী খলীকুজ্জমান আহমদ প্রবীণদের অধিকার ও মর্যাদা নিশ্চিত করতে সামাজিক ও পারিবারিক মূল্যবোধের পরিচর্যার বিকল্প নেই বলে মন্তব্য করেন। প্রবীণদের জীবনমান উন্নয়নের জন্য নবীন-প্রবীণ মেলবন্ধনের পাশাপাশি সকলের একযোগে কাজ করার প্রতি গুরুত্বারোপ করেন তিনি। বাংলাদেশে প্রবীণ নীতিমালার পাশাপাশি প্রবীণ সুরক্ষায় স্বাস্থ্যের প্রতি গুরুত্বআরোপ করেন তিনি।
ওয়েবিনারে পিকেএসএফের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ মঈনউদ্দীন আবদুল্লাহসহ জাতীয় ও আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংগঠনের কর্তাব্যক্তি ও সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ মুক্ত আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠানে প্রারম্ভিক বক্তব্য রাখেন প্রবীণ অধিকার মঞ্চের কোষাধাক্ষ্য ড. মো. জসীম উদ্দিন এবং স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রবীণ অধিকার মঞ্চের সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসিব খান। বিআইডিএস’র সাবেক সিনিয়র রিসার্চ ফেলো ড. শরীফা বেগম অনুষ্ঠানে উপস্থাপনা প্রদান করেন।