সুইট ছিলেন সাহসী সাংবাদিক : স্মরণসভায় বক্তারা

20

চাঁপাইনবাবগঞ্জে প্রয়াত সাংবাদিক ইমতিয়ার ফেরদৌস সুইটের প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে স্মরণসভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। দৈনিক চাঁপাই চিত্র আয়োজিত স্মরণসভায় বক্তারা বলেছেন- সাংবাদিক সুইট মৃত্যুর আগ পর্যন্ত দায়িত্ব পালনে ছিলেন সাহসী ও নিষ্ঠাবান। প্রয়াত সুইট তার কর্মের মাধ্যমে সাংবাদিক কমিউনিটিতে আজীবন বেঁচে থাকবেন। তার বিভিন্ন সাহসী ও বস্তুনিষ্ঠ প্রতিবেদন এবং ফিচার তাকে অল্প বয়সে পরিচিত করে তোলে। বিশেষ করে যে কোনো বিষয়ভিত্তিক সংবাদ ও ফিচার তৈরির দক্ষতা এ প্রজন্মের সাংবাদিকদের জন্য অনুকরণীয়।
চাঁপাই চিত্র কার্যালয়ে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। দৈনিক চাঁপাই চিত্রের সম্পাদক মো. কামাল উদ্দীন তার বক্তব্যে বলেন, সাংবাদিক ইমতিয়ার ফেরদৌস সুইট তার বিভিন্ন কাজের মাঝেই বেঁচে থাকবে। চাঁপাই চিত্র যতদিন থাকবে সুইটের কথা ততদিন মনে রাখবে।
চাঁপাই চিত্রের সম্পাদকম-লীর সভাপতি মো. সামিউল হক লিটনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত স্মরণ সভায় আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি গোলাম মোস্তফা মন্টু, টি ইসলাম গ্রুপের চেয়ারম্যান মো. তরিকুল ইসলাম, এটিএন বাংলার চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি নাসিম মাহমুদ, গৌড় বাংলার ব্যবস্থাপনা সম্পাদক আজিজুর রহমান শিশির, জাসদ নেতা মো. মনিরুজ্জামান মনির, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কৌশিক আহমেদ, প্রয়াত সাংবাদিক সুইটের ছোটভাই ইমতিয়াজ মাসরুর কুইক।
চাঁপাই চিত্রের নিজস্ব প্রতিবেদক ফারুক আহমেদ চৌধুরীর সঞ্চালনায় স্মরণ সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন দৈনিক চাঁপাই চিত্রের নির্বাহী সম্পাদক অলিউজ্জামান রুবেল, ফটো সাংবাদিক সারওয়ার জাহান লিটন, নিজস্ব প্রতিবেদক মেহেদী হাসান, মসিউর রহমান জিহাদ, সার্কুলেশন ব্যবস্থাপক আল-আমিন ইসলাম।
দোয়া পরিচালনা করেন পাঠানপাড়া মসজিদের ইমাম মাওলানা মো. আমানউল্লাহ।
প্রয়াত সাংবাদিক সুইট দৈনিক চাঁপাই চিত্রের প্রতিষ্ঠাতা বার্তা সম্পাদক ছিলেন। এর আগে তিনি দৈনিক নবাব, সাপ্তাহিক গৌড় সংবাদ, দৈনিক আমার দেশ, বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল ওয়ান, দৈনিক যুগান্তর এবং সবশেষ কালের কণ্ঠ, জিটিভি ও দৈনিক করতোয়ার চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত ছিলেন। এছাড়াও তিনি রেডিও মহানন্দায় দায়িত্ব পালন করেন।
২০১৯ সালের ১৫ আগস্ট সকাল সাড়ে ৬টার দিকে নিজস্ব বাসভবনে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মাত্র ৩৮ বছর বয়সে মারা যান সাহসী সাংবাদিক সুইট।