বাড়িভাড়া নির্ধারণ সম্পর্কিত ধারার বৈধতা নিয়ে রুল

বাড়িভাড়া নিয়ন্ত্রণ আইনের ভাড়া নির্ধারণ পদ্ধতি সংক্রান্ত ধারাটি কেন অবৈধ ও বেআইনি ঘোষণা করা হবে না- তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। এ সংক্রান্ত এক রিটে সম্পূরক আবেদনের শুনানি নিয়ে রবিবার বিচারপতি রেফাত আহমেদ ও বিচারপতি মো. সোহরাওয়ারদী সমন্বয়ে গঠিত একটি হাইকোর্ট ডিভিশন এই আদেশ দেন।
পাশাপাশি ওয়ার্ড বেসিসে রেন্ট কন্ট্রোলার নিয়োগ, ভাড়ার আদর্শ মান নির্ধারণ ও সুপারিশের জন্য একটি কমিশন গঠনের কেন নির্দেশ দেয়া হবে না- রুলে তাও জানতে চাওয়া হয়েছে। ১৯৯১ সালের বাড়িভাড়া নিয়ন্ত্রণ আইনের ১৫ ধারা চ্যালেঞ্জ করে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা চেয়ে জনস্বার্থে মানবাধিকার ও পরিবেশবাদী সংগঠন হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশ (এইচআরপিবি) সম্পূরক আবেদনটি করে। আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মনজিল মোরসেদ।
মনজিল মোরসেদ সাংবাদিকদের বলেন, বাড়িভাড়া নিয়ন্ত্রণ আইনের ১৫ ধারায় বাড়িভাড়া নির্ধারণ পদ্ধতি বলা আছে। এ অনুসারে বর্তমানে ৩০ হাজার টাকার বাড়িভাড়া ৯০ হাজার টাকা হয়ে দাঁড়ায়, যা বাস্তবসম্মত নয়। শুনানি নিয়ে আদালত রুল দেন। চার সপ্তাহের মধ্যে আইন সচিব, ভূমিসচিব, দুই সিটি করপোরেশনসহ সংশ্লিষ্টদের রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।