স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে অর্পিত দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করতে হবে : বিভাগীয় কমিশনার

রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনার মো. নূর-উর-রহমান বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারণ করলেই হবে না, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে হলে যে যার অবস্থান থেকে অর্পিত দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করতে হবে, সকলকে সোনার মানুষ হতে হবে। মঙ্গলবার সকালে চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুরে ভূমিহীনদের মাঝে খাসজমি বন্দোবস্ত প্রদানকৃত কবুলিয়ত এবং শিক্ষার মানোন্নয়নের লক্ষে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ, সততা স্টোর স্থাপনের লক্ষে প্রণোদনা প্রদান ও শুদ্ধাচার চর্চা উদ্ধুদ্ধকরণ বিষয়ক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
বিভাগীয় কমিশনার আরো বলেন- ২০২০ সালকে ‘মুজিববর্ষ’ হিসেবে পালন করা হবে। আসুন, আমরা সবাই স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে কাজ করি। এ সময় তিনি সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের শুদ্ধাচার চর্চার আহ্বান জানিয়ে বলেন- সেবাগ্রহীতরা যেন কোনো ধরনের হয়রানি ছাড়াই সঠিক সময়ে সেবা পান সেদিকে আমাদের খেয়াল রাখতে হবে। শিক্ষকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন-আপনারা মানুষ গড়ার কারিগর, শিক্ষার্থীরা যেন সোনার মানুষ হয়ে গড়ে উঠতে পারে আপনারা সে বিষয়টির দিকে গুরুত্ব দেন।
সকালে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনার মো. নূর-উর-রহমান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক এ জেড এম নূরুল হক।
গোমস্তাপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শিহাব রায়হানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে অন্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হুমায়ন রেজা, রহনপুর পৌর মেয়র তারিক আহমদ, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান হাসানুজ্জামান নুহু ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহাফুজা খাতুন, মুক্তিযোদ্ধা আখতার আলী কচি খানসহ অন্যরা।
আলোচনা শেষে সততা স্টোর স্থাপনের লক্ষে ১০টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে প্রণোদনা হিসেবে ১৮ হাজার টাকা করে ১ লাখ ৮০ হাজার টাকা প্রদান করা হয় এবং ৩৫টি ভূমিহীন পরিবারের মাঝে বন্দোবস্তকৃত জমির কবুলিয়ত ও শিক্ষার মানোন্নয়নের লক্ষে ১০টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষা উপকরণ হিসেবে ফাইবারের তৈরি ১৬০টি বেঞ্চ প্রদান করেন প্রধান অতিথি রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনার মো. নূর-উর-রহমান।
গোমস্তাপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শিহাব রায়হান জানান, ৩৫ জন ভূমিহীনকে ৪ থেকে ৮ শতাংশ করে জমি বন্দোবস্ত দেয়া হয়।