সোনামসজিদ স্থলবন্দরকে আন্তর্জাতিকমানে উন্নীত করা হবে : পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম এমপি বলেছেন, প্রথম পর্যায়ে দেশের কয়েকটি স্থলবন্দরকে মডেল স্থলবন্দর হিসেবে উন্নয়নের কাজ চলছে। পর্যায়ক্রমে সোনামসজিদ স্থলবন্দরকেও আন্তর্জাতিকমানে উন্নীত করে একটি মডেল স্থলবন্দরে রূপান্তর করা হবে। এই বন্দরকে আন্তর্জাতিকমানের করতে সরকার সর্বাধিক কাজ করে যাচ্ছে। দেশের অর্থনীতির ভীত মজবুত করতে এবং দেশকে স্বনির্ভর করতে শুধু এ বন্দরই নয় দেশের প্রতিটি বন্দরকে আন্তর্জাতিকমানে উন্নীতকরণ করা হবে।
শনিবার বিকেলে সোনামসজিদ স্থলবন্দরকে আন্তর্জাতিকমানে উন্নীতকরণে স্থলবন্দর সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের সাথে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম এসব কথা বলেন। সোনমসজিদ স্থলবন্দরে পানামা পোর্ট লিংক লিমিটেডের সম্মেলন কক্ষে এ মতবিনিময় সভার আয়োজন করে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রশাসন।
পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বলেন, দেশের উন্নয়নের অগ্রযাত্রা ও প্রবৃদ্ধি সম্প্রসারণের জন্য আগামী কয়েকদিন পর ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাণিজ্যিক ইস্যুসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করতে বাংলাদেশ সফর করবেন। এ সফর উভয় দেশের পারস্পারিক বন্ধন ও বাণিজ্যিক সম্পর্কের বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। সে সময় বন্দরগুলোর বিভিন্ন সমস্যা তুলে ধরে তা সমাধানের উদ্যোগ নেয়া হবে। ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এ সফর দেশের প্রতিটি স্থলবন্দরকে আন্তর্জাতিকমানে উন্নীতকরণ ও দেশের আর্থিক উন্নয়নের পথ সুগম করতে অগ্রণী ভূমিকা রাখবে বলে জানান শাহরিয়ার আলম।
মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ-১ (শিবগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য ডা. সামিল উদ্দিন আহমেদ শিমুল। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য মু. জিয়াউর রহমান, জেলা প্রশাসক এ জেড এম নূরুল হক, পুলিশ সুপার টি.এম মোজাহিদুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট দেবেন্দ্র নাথ উরাঁও, চাঁপাইনবাবগঞ্জ চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি আলহাজ্ব মো. এরফান আলী, শিবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সৈয়দ নজরুল ইসলাম, ভোলাহাট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. রাব্বুল হোসেন, শিবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার চৌধুরী রওশন ইসলাম, পানামা পোর্ট লিংক লিমিটেডের পরিচালক রেহান খান ও নির্বাহী পরিচালক এস.এম সালাউদ্দিন, সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান, আমদানি-রফতানিকারক গ্রুপের সভাপতি মো. রফিকুল ইসলামসহ অন্যরা।
পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী সোনামসজিদ সীমান্তবর্তী জিরো পয়েন্ট পরিদর্শন করেন এবং বন্দরের বিভিন্ন সমস্যা ও সম্ভাবনা বিষয়ে বন্দর সংশ্লিষ্টদের কাছ থেকে মনোযোগ সহকারে শোনেন। এ সময় বন্দরের সমস্যা-সম্ভাবনা ও সুপারিশের স্থিরচিত্র প্রদর্শনের ওপর বক্তৃতা করেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. বরমান হোসেন।
সভার শুরুতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪তম শাহাদাতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।
এর আগে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌঁছলে সার্কিট হাউসে তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান জেলা প্রশাসক এ জেড এম নূরুল হক ও পুলিশ সুপার টি.এম মোজাহিদুল ইসলাম। এ সময় পুলিশের একটি চৌকস দল পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীকে গার্ড অব অনার প্রদান করে। এরপর স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের সাথে মতবিনিময় করেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। এসময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন সাবেক এমপি জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল ওদুদ ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আলহাজ্ব রুহুল আমিন, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলাম, জেলা স্বাধীনতা চিকিসক পরিষদের সভাপতি ডা. গোলাম রাব্বানীসহ আওয়ামী লীগ, অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।