আন্তঃনগর ট্রেন চালুর আশ্বাসে আওয়ামী লীগের আনন্দ সমাবেশ

দীর্ঘ ৮বছর পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রতিশ্রুত চাঁপাইনবাবগঞ্জ-ঢাকা আন্তঃনগর ট্রেন চালুর আশ্বাসে আনন্দ মিছিল ও সমাবেশ করেছে আওয়ামী লীগ। বৃহস্পতিবার রাজশাহীতে রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন এ আশ্বাস দেন বলে জানা গেছে।
বৃহস্পতিবার সকালে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের ব্যানারে চাঁপাইনবাবগঞ্জ রেলস্টেশনে অনুষ্ঠিত আনন্দ সমাবেশে প্রধানমন্ত্রী ও রেলমন্ত্রীকে অভিনন্দন জানানো হয়। সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তব্য দেন, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি বোর্ডের সভাপতি মনিরুল ইসলাম, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক শরিফুল আলম।
এদিকে, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য আব্দুল ওদুদ তার প্রতিক্রিয়ায় বলেন, চারদলীয় জোট সরকার ক্ষমতায় থাকার সময় রেলের উন্নয়ন না করায় যাত্রীসাধারণ মুখ ফিরিয়ে নিয়েছিল। ২০০৮ সালে দেশরত শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর পৃথক রেল মন্ত্রণালয় গঠন করে গত ১০ বছরে রেলের ব্যাপক উন্নয়ন করে। এরই ধারাবাহিকতায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুত চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে ঢাকাগামী পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেন চালু করা হয়। বর্তমানে ট্রেনটি সরাসরি চালুর ঘোষণা আসায় তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ রেলমন্ত্রীকে অভিনন্দন জানান। তিনি বলেন, খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে চাঁপাইনবাবগঞ্জ-সোনামসজিদ স্থলবন্দর পর্যন্ত রেললাইন সম্প্রসারণ সমীক্ষার কাজ শুরু হবে।
উল্লেখ্য, ২০১১ সালের ২৩ এপ্রিল চাঁপাইনবাবগঞ্জ সরকারি কলেজ মাঠের জনসভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চাঁপাইনবাবগঞ্জ-ঢাকা সরাসরি আন্তঃনগর ট্রেন চালুর প্রতিশ্রুতি দেন। এরপর সাবেক সংসদ সদস্য আব্দুল ওদুদের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় রেললাইন সংস্কার, আমনুরা বাইপাস রেললাইন ও স্টেশন নির্মাণসহ চাঁপাইনবাবগঞ্জ রেলস্টেশনে অবকাঠামোগত উন্নয়ন করা হয়।
সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য ফেরদৌসী ইসলাম জেসি রাজশাহী থেকে ফিরে জানান,  বৃহস্পতিবার সকালে রাজশাহী-ঢাকা বিরতিহীন বনলতা ট্রেন উদ্বোধন উপলক্ষে রাজশাহী রেলস্টেশনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন জানিয়েছেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ রেলস্টেশনের অবকাঠামোগত বেশ কিছু উন্নয়ন শেষে আগামী ঈদুল আযহার আগেই চাঁপাইনবাবগঞ্জ-ঢাকা সরাসরি একটি আন্তঃনগর ট্রেন চালু করা হবে।