কালেক্টরেট ইংলিশ স্কুল : মানবিক মূল্যবোধসম্পন্ন মানুষ তৈরির লক্ষ্য

পৃথিবী এখন হাতের মুঠোয়, এখন দাপ্তরিক কাজ, স্কুল কলেজে ভর্তি, জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধনসহ বলা যায় সকল ক্ষেত্রেই সবকিছু হচ্ছে আধুনিক প্রযুক্তি তথা কম্পিউটার বা স্মার্টফোন ব্যবহারের মাধ্যমে। তবে এসব ক্ষেত্রে ভালো করছেন তারাই যারা ইংরেজি ভাষা জানেন। আধুনিক তথ্যপ্রযুক্তির এ যুগে ইংরেজি ভাষা জানা লোকদের কদরও অনেক বেশি। কারণ, তারা সহজেই বিশ্বের সাথে যোগাযোগ স্থাপন করতে পারেন। চাকরি পাবার সময় ইংরেজি জানা লোকের চাকরি পেতেও সহজ হয়। যারা দেশের গ-ি পেরিয়ে বিদেশে চাকরির জন্য পাড়ি জমান তাদের অনেকেই ইংরেজি ভাষা না জানার কারণে ভালো করতে পারেন না। কিন্তু চাহিদার তুলনায় ইংরেজি শেখার মতো তেমন কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নেই। আর তাই এ বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রশাসন “কালেক্টরেট ইংলিশ স্কুল” নামে একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। জেলা শহরের কালেক্টরেট শিশু পার্ক সংলগ্ন অক্ট্রয় মোড়-সার্কিজ হাউজ মোড় সড়কে একটি সরকারি বাসায় অস্থায়ী ক্যাম্পাস স্থাপন করা হয়েছে। সেখানে অতি অল্প টাকায় নার্সারি, কেজি ও স্টার্ন্ডাড-১ শ্রেণিতে শিশুরা ভর্তি হয়ে ইংরেজি শিখতে পারবে। আগামী ১৭ জানুয়ারি আবেদনের শেষ তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে।
গতকাল বুধবার বিকেলে স্কুল ক্যাম্পাস পরিদর্শনকালে জেলা প্রশাসক এ জেড এম নূরুল হক বলেন-আধুনিক, মানসম্মত, বিশ্ব মানের শিক্ষা প্রদান করে আগামীর বাংলাদেশ বিনির্মাণের জন্য সৎ, যোগ্য, সৃষ্টিশীল, আত্মবিশ্বাসী, বিজ্ঞানমনস্ক, দেশপ্রেমিক, দায়িত্বশীল, মুক্তচিন্তার অধিকারী, মানবিক মূল্যবোধসম্পন্ন সুনাগরিক হিসেবে শিশুদের গড়ে তোলার প্রত্যয় নিয়ে কালেক্টরেট ইংলিশ স্কুল নামে একটি অত্যাধুনিক বিদ্যালয় স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। প্রাথমিকভাবে ২০১৯ শিক্ষাবর্ষে এ স্কুলে নার্সারি, কেজি ও স্টার্ন্ডাড-১ শ্রেণিতে সীমিত সংখ্যক আসনে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। তিনি জানান, বর্তমানে জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খাদিজা বেগম অধ্যক্ষ এবং ম্যাজিস্ট্রেটগণ শিক্ষকের হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। জেলা প্রশাসক আরো বলেন-এ স্কুলটির কার্যক্রম এইচএসসি পর্যন্ত উন্নীত করা হবে।
এ-সময় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট দেবেন্দ্রনাথ উরাঁও, শিক্ষা ও আইসটি শাখার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নয়ন কুমার রাজবংশী, সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খাদিজা বেগম (ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ) খাদিজা বেগম।

SHARE