রেফারির সিদ্ধান্তে অসন্তুষ্ট রামোস

লা লিগায় ঘরের মাঠে পয়েন্ট তালিকার নিচের দিকের দল রিয়াল সোসিয়েদাদের কাছে বিব্রতকর হারের পর রেফারির সিদ্ধান্তে অসন্তোষ জানিয়েছেন সের্হিও রামোস। ভিডিও অ্যাসিস্টেন্ট রেফারি (ভিএআর) প্রযুক্তি ব্যবহার না করায় ম্যাচ অফিশিয়ালদের সমালোচনা করেছেন রিয়াল মাদ্রিদের অধিনায়ক।
রোববার সান্তিয়াগো বের্নাবেউয়ে ম্যাচটি ২-০ গোলে হারে মাদ্রিদের দলটি। ম্যাচের তৃতীয় মিনিটে স্পট কিক থেকে এগিয়ে যায় সোসিয়েদাদ। বিরতির পর লুকাস ভাসকেস দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছাড়লে শেষ ৩০ মিনিট রিয়াল খেলে ১০ জন নিয়ে। শেষ দিকে রক্ষণের ব্যর্থতায় আরও একটি গোল হজম করে স্পেনের সবচেয়ে সফল ক্লাবটি।
৬৩তম মিনিটে ডি-বক্সে একা ঢুকে পড়া রিয়ালের তরুণ ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড ভিনিসিউস জুনিয়র গোলরক্ষক জেরোনিমো রুলির চ্যালেঞ্জে পড়ে গেলে পেনাল্টির জোরালো আবেদন করে তার সতীর্থ খেলোয়াড়রা। রেফারি অবশ্য তাতে সাড়া দেননি। ম্যাচ শেষে অসন্তোষ লুকাননি রামোস।
“মাঠে রেফারি খুব বড় ভূমিকা পালন করেন। আমি সবসময় ভিএআর প্রযুক্তির পক্ষে কথা বলেছি। কিন্তু এর উন্নতি করতে হবে কারণ আমরা যা দেখেছি তা খুব লজ্জাজনক ছিল।” “তিনি পেনাল্টির সিদ্ধান্তটা দিতে পারতেন। আর তারপর ভিএআর প্রযুক্তির সাহায্য নিতে পারতেন। ড্রেসিং রুমে পেনাল্টির ঘটনাটা দেখার পর, আমরা সবাই ন্যায্যতা চেয়েছিলাম। মাঠে আমাদের আচরণের জন্য আমরা নানা সময়ে শাস্তি পাই। আর রেফারিদের কমিটির উচিত রেফারিদের জন্য একই ব্যবস্থা করা। ভিএআর প্রযুক্তি চালু করা হয়েছে। কিন্তু কিভাবে এটা ব্যবহার করতে হয় তা আপনার জানা দরকার।” “লুকাস ভাসকেসের লাল কার্ডের সিদ্ধান্তটা অনেক কঠিন ছিল। আগে কখনোই আমি দেখিনি এমন কিছুর জন্য একজন খেলোয়াড়কে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখানো হয়েছে।” লিগে ১৮ ম্যাচে ৯ জয় ও তিন ড্রয়ে ৩০ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকার পঞ্চম স্থানে আছে রিয়াল। শীর্ষে থাকা বার্সেলোনার পয়েন্ট ৪০।

SHARE