বিএনপি অর্বাচীন ও অজ্ঞ : শেখ হাসিনা

বুধবার জাতীয় সংসদের প্রশ্নোত্তর পর্বে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপিকে অর্বাচীন ও অজ্ঞ বলেছেন। বাংলাদেশের উৎক্ষেপিত প্রথম স্যাটেলাইন বঙ্গবন্ধু-১ এর মালিকানা নিয়ে প্রশ্ন তোলায় বিএনপিকে নিয়ে তিনি এ মন্তব্য করেন।গত ১১ এপ্রিল যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা থেকে মহাকাশে যাত্রা শুরু করে এরই মধ্যে নির্দিষ্ট কক্ষপথে পৌঁছে গেছে দেশের প্রথম স্যাটেলাইটটি। একে দেশে বিদেশে বাংলাদেশ সরকারের দারুণ সাফল্য হিসেবে প্রচার করা হচ্ছে। বাংলাদেশের জনগণও এ ঘটনায় আনন্দিত। তবে স্যাটেলাইট উৎক্ষেপনের পরদিন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সংশয় প্রকাশ করে বলেছেন, স্যাটেলাইটের মালিকানা বাংলাদেশের হাতে নেই। এর মালিকানা দুই ব্যক্তির হাতে।

এ বিষয়ে সংসদ সদস্য ফজিলাতুন্নেসা বাপ্পী প্রধানমন্ত্রীকে প্রশ্ন করলে উত্তরে তিনি বলেন, ‘স্যাটেলাইটের মালিকানা অবশ্যই বাংলাদেশের এবং বাংলাদেশ সরকারই এর মালিক। যারাই ভাড়া নেবে, যেটুকু সে ভাড়া নেবে, সেটুকুর মালিক হবে তারা। দুটি ব্যক্তি তো এটার মালিক হতে পারে না। এই ধরনের মন্তব্য করাটা অত্যন্ত লজ্জাজনক।’এই স্যাটেলাইট থেকে যেসব সেবা পাওয়া যাবে তার মধ্যে একটি হচ্ছে ডিটিএইচ (ডাইরেক্ট টেলিভিশন টু হোম) সেবা যা দুইজন দেবেন। শেখ হাসিনা বলেন, সম্ভবত এই বিষয়টিকেই বিএনপি নেতারা স্যাটেলাইট মালিকানার সঙ্গে গুলিয়ে ফেলছেন। এসব কথাকে সম্পূর্ণ অর্বাচীন ও অজ্ঞের মতো বলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এমন কথা একমাত্র বিএনপির পক্ষেই বলা সম্ভব।

প্রধানমন্ত্রী বিএনপি শাসনামলে বাংলাদেশের সাবমেরিন কেবলে বিনামূল্যে সংযুক্ত হওয়ার সুযোগ থাকা সত্ত্বেও সে সুযোগ না নেওয়ার কথা উল্লেখ করে বলেন, বিএনপি একেবারেই অর্বাচীন, অজ্ঞ ও টেকনোলজি সম্পর্কে ধারণাহীন। দলটি ক্ষমতায় থাকলে দেশ উন্নত হবে না বলেও তিনি মন্তব্য করেন।এরপর প্রধানমন্ত্রী সংসদে তথ্যপ্রযুক্তি ও গবেষণা খাতে বর্তমান সরকারের নেওয়া বিভিন্ন উদ্যোগের কথা তুলে ধরেন।