১৮ এপ্রিল সিনেমা হলের পর্দা উঠছে সৌদি আরবে

3

সৌদি আরবে ৩৫ বছর পর রাজধানী রিয়াদে প্রথম সিনেমা হলের পর্দা উঠতে যাচ্ছে ১৮ এপ্রিল। ওইদিন ‘ব্ল্যাক প্যানথার’ চলচ্চিত্রটি দেখানো হবে। সম্প্রতি নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়ে সৌদি সরকারের দেশজুড়ে সিনেমা হল চালুর সিদ্ধান্তের আওতায়ই প্রথম এ সিনেমা হল চালু হচ্ছে। আগামী পাঁচ বছরে সৌদি আরবের ১৫ নগরীতে ৪০টি সিনেমা হল খোলা হবে। এজন্য বিশ্বের সবচেয়ে বড় আমেরিকান চেইন মুভি থিয়েটার প্রতিষ্ঠান ‘এএমসি এন্টারটেইনমেন্ট হোল্ডিংস’য়ের সঙ্গে চুক্তি করেছে কর্তৃপক্ষ। হলগুলোতে নারী-পুরুষ একসঙ্গেই সিনেমা দেখতে পারবে বলে খবরে জানানো হয়েছে। রক্ষণশীল সৌদি আরবে ১৯৭০-এর দশকে কিছু সিনেমা হল ছিল। কিন্তু কট্টরপন্থি ধর্মীয় নেতাদের প্রভাবে সেগুলো বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। সম্প্রতি দেশটিতে যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান ক্ষমতা নেওয়ার পর আমূল অর্থনৈতিক ও সামাজিক সংস্কার পরিকল্পনা নিয়েছেন। তার ‘ভিশন ২০৩০’ পরিকল্পনার আওতায় গতবছর সৌদি আরবের বিনোদোন জগতে বড় ধরনের পরিবর্তন সূচিত হয়েছে। গত ডিসেম্বরে সৌদি আরবে সিনেমা হলের ওপর থেকে ৩৫ বছরের নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার ঘোষণা দেয় সরকার। বহুদিনের কঠোর নিয়ম-কানুন শিথিলের আওতায় সিনেমা হলের পাশাপাশি আরও অনেক বিষয়ের ওপর থেকেও নিষেধাজ্ঞা তুলে নিচ্ছে সৌদি আরব। এর মধ্যে নারী অধিকারের স্বীকৃতি দিয়ে নতুন দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে চাইছেন যুবরাজ সালমান। আর বিনোদন কেন্দ্র চালু করার মধ্য দিয়ে রক্ষণশীল সমাজ থেকে সরে আসার নমুনাই খুব সম্ভবত দাঁড় করাতে চাইছেন তিনি। যুবরাজ সালমান যুক্তরাষ্ট্রও সফর করছেন। মার্কিন বিনিয়োগ আকৃষ্ট করার চেষ্টা চালাচ্ছেন তিনি।