প্রশ্ন ফাঁস রোধে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবিতে চাঁপাইনবাবগঞ্জ সনাকের মানববন্ধন

5

সোমবার থেকে শুরু এইচএসসি ও সমানের পরীক্ষা। পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁসের কারণ, এর ফলাফল ও প্রভাব সম্পর্কে জনসচেতনতা সৃষ্টি এবং প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবিতে গতকাল রবিবার চাঁপাইনবাবগঞ্জে মানববন্ধন করেছে টিআইবির সচেতন নাগরিক কমিটি-সনাক।
টিআইবির দেশব্যাপী মানববন্ধনের অংশ হিসেবে ‘শিক্ষা খাতে সুশাসন ও মেধাভিত্তিক বাংলাদেশ: চাই পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁসের কার্যকর নিয়ন্ত্রণ’ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে বেলা ১১ টায় নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজের সামনে এ কর্মসূচি পালন করা হয়।
মানববন্ধনে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন, সনাক সভাপতি অ্যাডভোকেট সাইফুল ইসলাম রেজা, সদস্য ন.স.ম. মাহবুবুর রহমান মিন্টু, উম্মে সালমা হ্যাপি, রাইহানুল ইসলাম লুনা, স্বজন সমন্বয়কারী এনামুল হক, স্বজন সদস্য নইমুল বারী, মনিরুল ইসলাম, নামোশংকরবাটী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আসলাম কবীর, বেসরকারি সংগঠনের প্রতিনিধি তৌহিদা খাতুন কমলা, শাহাদৎ হোসেন মামুন প্রমুখ।
প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে সনাকের দাবিসমূহ তুলে ধরে ধারণাপত্র পাঠ করেন, সনাক সহ-সভাপতি গোলাম ফারুক মিথুন। ধারণাপত্রে বলায় হয়-‘পাবলিক পরীক্ষাসমূহ (অপরাধ) (সংশোধন) আইন ১৯৯২ এর ৪ ধারা পুনরায় সংশোধন করে শাস্তির মাত্রা পূর্বের ন্যায় সর্বোচ্চ ১০ বছরের কারাদ-ের বিধান প্রণয়ন এবং নির্দিষ্ট ধারা অনুযায়ী দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির যথাযথ প্রয়োগ নিশ্চিত করা; কোচিং সেন্টার নিষিদ্ধকরণে সরকারের ‘শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকদের কোচিং বাণিজ্য বন্ধ নীতিমালা ২০১২’ এর অস্পষ্টতা দূর করা এবং কোচিং বাণিজ্য বন্ধে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সংশ্লিষ্টদের বিভিন্ন প্রণোদনাসহ অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধি করা; প্রশ্ন ফাঁস রোধ ও সৃজনশীল পদ্ধতির উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে গাইড বইয়ের আদলে প্রকাশিত সহায়ক গ্রন্থাবলী বন্ধে প্রচলিত আইনের প্রয়োগ নিশ্চিত করা; তথ্য প্রযুক্তির অপব্যবহার রোধে তদারকি বাড়ানো ও প্রচলিত আইনের অধীনে শাস্তি নিশ্চিত করা; ধাপ কমিয়ে প্রশ্ন প্রণয়ন, ছাপানো ও বিতরণের কাজটি পরীক্ষামূলকভাবে ডিজিটাল পদ্ধতিতে সম্পন্ন করা এবং পরবর্তীতে সে অনুযায়ী প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা। প্রয়োজনে সংশ্লিষ্ট বিষয়ে বিশেষজ্ঞের পরামর্শ গ্রহণ করা; প্রশ্ন ফাঁস নিয়ে গঠিত যে কোনো তদন্ত প্রতিবেদন জনসম্মুখে প্রকাশ এবং সে অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা; শিক্ষা ও পরীক্ষা পদ্ধতি এবং ব্যবস্থাপনাগত যে কোনো পরিবর্তনের ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট সকলকে পর্যাপ্ত সময় দেওয়া এবং যথাযথ প্রশিক্ষণ প্রদান করা; প্রশ্ন ফাঁস রোধে বহুনির্বাচনী প্রশ্ন ব্যবস্থা ক্রমান্বয়ে তুলে দেওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করা এবং পাবলিক পরীক্ষায় প্রতিটি বিষয়ে প্রশ্নপত্রের একাধিক সেট রাখা।
মানবন্ধনে সনাক, স্বজন, ইয়েস ও ইয়েস ফ্রেন্ডস্ সদস্যবৃন্দ, শিক্ষক ছাত্র, বেসরকারি সংগঠনের প্রতিনিধি, সামাজিক সংগঠনের নেত্রীবৃন্দ সহ চাঁপাইনবাবগঞ্জের বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার প্রায় ১৪০ জন নারী-পুরুষ উপস্থিত ছিলেন।