নেজামপুর ইউপির ৭নম্বর ওয়ার্ড ফাইনালে উত্তীর্ণ

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল উপজেলার নেজামপুর ইউনিয়নের হাটবাকইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যায়ের টিকইল মাঠ সোমবার অনুষ্ঠিত ফুটবল টুর্নামেন্টের সেমিফাইনালের খেলায় ৩ নং ওয়ার্ডের বরেন্দ্রা যুবদলকে ৩-১ গোলে হারিয়ে ফাইনালে উত্তীর্ণ হয়েছে ৭ নং ওয়ার্ডের দিয়াড়া যুবদল।
খেলাটি পরিচালনা করেন প্রয়াস মানবিক উন্নয়ন সোসাইটির সমৃদ্ধি কর্মসূচির স্বাস্থ্য বিভাগের সমৃদ্ধি স্বাস্থ্য কর্মকর্তা রুহুল ইসলাম এবং লাইন্সম্যান ছিলেন সমাজ উন্নয়ন সংগঠক তোহিদুল ইসলাম ও রুহুল আমিন।
এতে বক্তব্য দেন ফসিউল ইসলাম, সমৃদ্ধি কর্মসূচি সমন্বয়কারী, ইউনিট-২২, সমৃদ্ধি-০৩, নেজামপুর।
সহায়তায় : পিকেএসএফ এর সহায়তায় সমৃদ্ধি কর্মসূচির আওতায় উন্নয়নে যুব সমাজ কার্যক্রমের অংশ হিসাবে বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা ২০১৭ বাস্তবায়ন করছে প্রয়াস মানিবক উন্নয়ন সোসাইটি।
রানীহাটি ইউনিয়নে ফুটবল খেলায় ৮নং ওয়ার্ডের জয়
প্রয়াসের সমৃদ্ধি কর্মসূচির আওতায় ৬নং রানীহাটি ইউনিয়নে অনুষ্ঠিত গত কাল সোমবারের ফুটবল খেলায় ৭নং ওয়ার্ডকে ১-০ গোলে হারিয়েছে ৮নং ওয়ার্ড। বিকেলে কৃষ্ণিগোবিন্দপুর ডিগ্রী কলেজ মাঠে অনুষ্ঠিত খেলায় ১-০ গোলের জয় পায় তারা। বিজয়ীদলের পক্ষে ১মাত্র গোলটি করে সুজন। এসময় প্যানেল চেয়ারম্যান নাসিম উদ্দিনের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন, প্যানেল চেয়ারম্যান-২ সায়েম আলী, ৮নং ওয়ার্ড সদস্য শরিফুল ইসলাম, ৮নং ওয়ার্ড সদস্য নজরুল ইসলাম, প্রয়াসের ইউনিট ১০ এর শাখা ব্যবস্থাপক ইমরান আলী, সমূদ্ধি কর্মসূচির সমন্বয়কারী রবিউল ইসলাম, সমৃদ্ধি টিমের সকল সদস্যসহ অন্যরা।
উন্নয়নে যুবসমাজ, শিক্ষা কার্যক্রমের ছাত্র-ছাত্রী ও অভিভাবকদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক ও ক্রীড়া কার্যক্রমের অংশ হিসেবে এই ফুটবল টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হচ্ছে। পল্লী-কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় এই টুর্ণামেন্ট বাস্তবায়ন করছে প্রয়াস মানবিক উন্নয়ন সোসাইটি। টুর্ণামেন্টে রানীহাটি ইউনিয়নের ৯টি ওয়ার্ড ৩টি গ্রুপে বিভক্ত হয়ে প্রত্যেকে একে অপরের সাথে লড়াই করছে। টুর্ণামেন্টর মিডিয়া পার্টনার হিসেবে রয়েছে রেডিও মহানন্দা ও দৈনিক গৌড় বাংলা।
অন্যদিকে সকাল ৯টায় দোগাছী বরেন্দ উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজ মাঠে প্রয়াস মানবিক উন্নয়ন সোসাইটির আয়োজনে, সাংস্কৃতিক ও ক্রীড়া কর্মসুচির আওতায়, পল্লী কর্ম-সহায়ক ফাউন্ডেশন (পিকেএসএফ) ও প্রয়াসের আর্থিক সহায়তায় বিভিন্ন প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। এরমধ্যে ছিল গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী খেলা গোল্লাছুট, বুড়ি বসানি, বেলুন ফোটানো ইত্যাদি। প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে একই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিভিন্ন ক্লাসের শিক্ষার্থীরা। খেলা উদ্ধোধন করেন দোগাছী বরেন্দ উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের অধ্যক্ষ মো. কাউসার আলী, প্রয়াস মানবিক উন্নয়ন সোসাইটির ইউনিট ২২ এর ম্যানেজার মো. আরিফুল ইসলাম ও সহ একই স্কুলের শিক্ষক ও প্রয়াসের কর্মকর্তা কর্মচারীবৃন্দ। সার্বিক ব্যবস্থাপনায় ছিলেন কর্মসুচি সংগঠক, সাংস্কৃতিক ও ক্রীড়া মো. রাকিবুল।

SHARE