শিবগঞ্জে তৈরী হচ্ছে ভারতীয় জালরুপি জালরুপি তৈরির সরঞ্জাম ও ৬ লাখ জালরুপিসহ গ্রেফতার ২

79

চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে ভারতীয় জাল রুপি তৈরী সিন্ডিকেট সক্রিয়ভাবে জাল রুপি তৈরী করে পাচার করছে।
রবিবার দিবগত মধ্যরাতে শিবগঞ্জ পৌর এলাকার চৌধুরীপাড়া থেকে ভারতীয় জালরুপি তৈরির সরঞ্জাম ও ৫ লাখ ৯০ হাজার ভারতীয় জালরুপিসহ ২জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হল, চৌধুরীপাড়ার ইমাজ উদ্দিনের ছেলে আব্দুস সালাম (৫৫) ও রংপুর জেলার কোতয়ালি থানার সেন্ট্রাল রোড এলাকার লোকমান মিয়ার ছেলে মেহেদী হাসান (৪২)। পুলিশের অভিযানের আগেই আরও সাড়ে লাখ জালরুপি ডিলারদের হাতে চলে গেছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।
গত কাল সোমবার বিকাল তিনটায় পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাহবুব আলম খান জানান, রবিবার দিবাগত রাত সাড়ে শিবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ হাবিবুল ইসলামের নেতৃত্বে পুলিশের এককটি দল শিবগঞ্জ পৌর এলাকার চৌধুরী পাড়ায় মো. আব্দুস সালামের বাড়িতে অভিযান চালায়। এ সময় ভারতীয় জালরুপি তৈরির সরঞ্জাম ও ৫ লাখ ৯০ হাজার ভারতীয় জালরুপিসহ মো. আব্দুস সালাম ও মো. মেহেদী হাসানকে গ্রেফতার করা হয়। তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পরিচালিত অভিযানে জালরুপি ছাড়াও জব্দ করা হয়েছে জালরুপি বানানোর কাজে ভ্যবহৃত একটি ল্যাপটপ, ২টি প্রিন্টার, কালার ফ্রেম ৪টি, জালরুপির সাদা কাগজ, রুপি গুলো শুকানোর ১টি মেশিন, ২টি মেমোরি কার্ডসহ জালরুপি  তৈরির  বিভিন্ন সরঞ্জাম।
জেলা পুলিশের এই কর্মকর্তা আরও জানান, মেহেদী হাসান রংপুর থেকে এসে আব্দুস সালামের বাসা ভাড়া নিয়ে জালরুপি তৈরী করে ডিলারদের কাছে সরবরাহ দেয়। পুলিশের কাছে খবর আছে আরও কয়েকটি সিন্ডিকেট জালরুপি ও জাল টাকা তৈরী করছে। রবিার দিবাগত মধ্যরাতে পুলিশের অভিযানের আগেই আরও সাড়ে লাখ ভারতীয় জালরুপি ডিলারদের কাছে চলে গেছে। পুলিশ এখন ওইসব ডিলারদের খুঁজছে।