উন্নয়নের জন্য প্রয়োজন আইনের শাসন

222222222আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, বিচার বিভাগের জন্য প্রয়োজন সুদক্ষ মানব সম্পদ। এই মানব সম্পদ উন্নয়নের জন্য স্থানীয় প্রশিক্ষণের পাশাপাশি  বিদেশে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। এ কার্যক্রমের আওতায় ৫৪০ জন বিচারককে প্রশিক্ষণের জন্য অস্ট্রেলিয়ায় পাঠানো হবে। যা ইতোপূর্বে কেউ করে নি। বৃহস্পতিবার বিকালে ২১ কোটি ৬০ লাখ টাকা ব্যয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জ চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত’র ১২ তলা ভিতের উপর নবনির্মিত চারতলা ভবনের উদ্বোধন উপলক্ষে স্থানীয় গণপূর্ত বিভাগ আয়োজিত সূধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি কথা গুলো বলেন। আইনমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উন্নয়নে বিশ্বাস করেন। উন্নয়ন না হলে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা কঠিন হয়ে পড়ে। শেখ হাসিনার সরকার বিশ্বাস করেন, বাংলাদেশের উন্নয়নের জন্য, গণতন্ত্র সুপ্রতিষ্ঠা করার জন্য, উন্নয়নের জন্য সবচেয়ে বড় প্রয়োজন আইনের শাসন। তাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আইন বিভাগকে প্রাধান্য দিয়ে দেশের ৬৪ জেলায় এ ধরণের ভবন নির্মাণের সিদ্ধান্ত নেন। আর যেন কোন সন্তানকে পিতৃহত্যার বিচার পেতে ২১ বছর অপেক্ষা করতে না হয় সে জন্য বিচার বিভাগ কাজ করে যাচ্ছে। দেশের মানুষ যেন ন্যায় বিচার পায় সেজন্য প্রধানমন্ত্রী লিগ্যাল এইড চালু করেছেন, যেন গরিব মানুষ বিনা খরচে সুবিচার পায়।  বাংলাদেশের উন্নয়নে যারা কাজ করে তাদেরকে ভোট দেবেন নাকী যারা বাংলাদেশকে ধ্বংস করে তাদেরকে ভোট দেবেন? এমন প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়ে আইনমন্ত্রী বলেন-বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার লক্ষ্যে, প্রধানমন্ত্রী হাসিনার উন্নয়নের ধারা বজায় রাখতে আগামী নির্বাচনে আবরও নৌকা মার্কায় ভোট দেবেন। এ সময় তিনি বলেন-চাঁপাইনবাবগঞ্জের উন্নয়নে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যদি কোন প্রতিশ্রুতি দিয়ে থাকেন তবে অবশ্যই তা বাস্তবায়ন করা হবে। তিনি বলেন-পুরাতন ভবনে ভাগ করে বিচার কাজ চালানো হতো কিন্তু এখন আর হবে না। কারণ এখানে পর্যাপ্ত সংখ্যক এজলাস ও বিচারক রয়েছেন। এই জেলায় ৫ হাজার মামলা দ্রুতই জটমুক্ত হবে বলে তিনি আশার কথা শোনান। তিনি বলেন-আমি জেনেছি, এখানে বার ও বেঞ্চের সমন্বয় রয়েছে। আইনের শাসন ও ন্যায় বিচার প্রতষ্ঠায় এটি খুবই প্রয়োজন। আগামীতেও এই ধারা অব্যাহত রাখার আহবান জানান এবং আইনজীবী সমিতি ভবনসহ অন্যান্য সমস্যা সমাধান করা হবে বলে উল্লেখ করেন। চাঁপাইনবাবগঞ্জ সিনিয়ির জেলা ও দায়রা জজ মো. এনামুল বারীর সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর আসনের সংসদ সদস্য মো. আব্দুল ওদুদ, আইন মন্ত্রণালয়ের সচিব আবু সালেহ শেখ মো. জহিরুল হক, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মইনুদ্দীন মন্ডল, অতিরিক্ত সচিব মোস্তাফিজুর রহমান, জেলা প্রশাসক মো. মাহমুদুল হাসান, গণপূর্ত বিভাগের রাজশাহী জোনের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী শফিকুর রহমান, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি মোসাদ্দেক হোসেন কাজল প্রমুখ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ চীপ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. আদীব আলী, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মাহবুব আলম খান প্রমুখ। আইনমন্ত্রী এর আগে ফল উন্মোচন করেন এবং আদালত প্রাঙ্গনে একটি আম গাছের চারা রোপন করেন।