শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পরিবেশ উন্নয়নে আগামী এক বছর কাজ করবে ক্ষুদে মন্ত্রীরা

91

উৎসব মুখর পরিবেশে জেলায় ৩২৬টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সম্পূর্ণ হলো ‘স্টুডেন্ট কেবিনেট নির্বাচন’’
Nawabganj

কৈশোর থেকে গণতন্ত্র চর্চার সঙ্গে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পরিবেশ উন্নয়নের কাজে শিক্ষার্থীদের যুক্ত করতে দেশের অন্যান্য স্থানের মত,জেলার মাধ্যমিক স্তরের স্কুল-মাদ্রাসায় সোমবার অনুষ্ঠিত হয় ‘স্টুডেন্ট কেবিনেট নির্বাচন’ ।
শিক্ষার্থীদের মন্ত্রিসভা গঠনের এই নির্বাচনে সকাল থেকেই শিক্ষার্থীদের উৎসাহ আর আগ্রহের কোন কমতি ছিলনা। ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের মন্ত্রীসভা গঠনের নির্বাচন হলেও সবধরনের আয়োজন ছিল জাতীয় যে কোন নির্বাচন আয়োজনের মতই। নির্বাচনে নির্বাচন কমিশনার, প্রিজাইডিং কর্মকর্তা, পোলিং অফিসারের দায়িত্বও পালন করেন শিক্ষার্থীরা। নির্বাচনে সার্বিক শৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্বও শিক্ষার্থীদের পালন করতে হয়।
সকালে শহরের হরিমোহন সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, গ্রীনভিউ উচ্চ বিদ্যালয় ও নয়াগোলা উচ্চ বিদ্যালয় ঘুরে উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট গ্রহনের চিত্র দেখা যায়। জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মুখলেসুর রহমান জানান, জেলায় ২২৪ টি মাধ্যমিক ও ১০২ টি মাদ্রাশায় ৮ সদস্যের মন্ত্রিসভায় নিজেদের মন্ত্রি নির্বাচনের লক্ষে ভোট দেন শিক্ষার্থীরা। সকাল ৯ টায় শুরু হয়ে ভোট গ্রহণ চলে একটানা দুপুর ২ টা পর্যন্ত।
কিশোর শিক্ষার্থীদের মন্ত্রিসভার কর্মপরিধিতে রয়েছে পরিবেশ সংরক্ষণ, পুস্তক ও শিখন সামগ্রী, স্বাস্থ্য, ক্রীড়া ও সংস্কৃতি, পানিসম্পদ, বৃক্ষরোপন ও বাগান তৈরি, দিবস পালন ও অনুষ্ঠান সম্পাদন, অভ্যর্থনা ও আপ্যায়ন এবং আইসিটি। আগামী ৭ দিনের মধ্যে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের সভাপতিত্বে প্রথম বৈঠকে বসবে কিশোর শিক্ষার্থীদের মন্ত্রিসভা। এই বৈঠকে ‘কেবিনেট প্রধান’ নিজেদের মধ্যে কর্মবণ্টন, সহযোগী সদস্য মনোনয়ন এবং সারা বছরের কর্মপরিকল্পনা করবেন। স্টুডেন্ট কেবিনেটকে মাসে কমপক্ষে একটি সভা করার বিধান রাখা হয়েছে, সেই সাথে প্রতি ছয় মাস পর সব শিক্ষার্থীর উপস্থিতিতে কেবিনেটের সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হবে। শিক্ষকরা সিদ্ধান্ত গ্রহণ ও বাস্তবায়নে সহযোগিতা ও পরামর্শ দেবেন।