২৪ ঘণ্টার মধ্যে অবসরে দুই ক্রিকেটার

6

২৪ ঘণ্টার মধ্যে দুটি অবসরের ঘটনা ঘটলো ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটে। শুরুতে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন সাবেক ওয়েস্ট ইন্ডিজ অধিনায়ক ও উইকেটকিপার ব্যাটার দিনেশ রামদিন। তার ঘোষণার রেশ কাটতে না কাটতে বিদায় বলেছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ ব্যাটার লেন্ডল সিমন্সও। ৭৪টি টেস্ট, ১৩৯টি ওয়ানডে ও ৭১ টি-টোয়েন্টি খেলা রামদিন সর্বশেষ ওয়ানডে ও টেস্ট খেলেছেন ২০১৬ সালে। এরপর থেকে নির্বাচকদের রাডারে ছিলেন না। সংক্ষিপ্ততম সংস্করণ টি-টোয়েন্টিতে অবশ্য শেষ ম্যাচ খেলেছেন ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে। ৩৭ বছর বয়সী রামদিন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় বললেও ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট খেলে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

যদিও আসন্ন সিপিএলে কোনও দল পাননি। অপর দিকে অভিজ্ঞ ব্যাটার লেন্ডল সিমন্সও বিদায় বলেছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে। তিন ফরম্যাট মিলে ১৪৪ ম্যাচ খেলা এই ব্যাটারের সংগ্রহ ৩ হাজার ৭৬৩ রান। তবে বেশির ভাগ ম্যাচই খেলেছেন সাদা বলের ক্রিকেটে। আর সবচেয়ে বেশি প্রভাব বিস্তার করতে পেরেছেন ওয়ানডেতেই। দুটি সেঞ্চুরির বিপরীতে রয়েছে ১৬টি হাফসেঞ্চুরি। তার মধ্যে ১২২ রানের সর্বোচ্চ স্কোরটি আবার বাংলাদেশের বিপক্ষে। ২০১১ সালে মিরপুরে স্কোরটি করেছিলেন।

তার পর থেকে টি-টোয়েন্টিতেই ক্যারিবিয়ানদের হয়ে মাঠ মাতিয়েছেন। ২০১৬ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জেতাতেও অবদান ছিল তার। সেমিফাইনালে ভারতের বিপক্ষে অপরাজিত হাফসেঞ্চুরি তার ক্যারিয়ারের অন্যতম প্রদর্শনী। অবসরের ঘোষণা দেওয়া সিমন্স ক্যারিবিয়ানদের হয়ে সর্বশেষ খেলেছেন গত বছরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে। আইপিএল ক্যারিয়ারেও মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে জিতেছেন দুই শিরোপা। সিমন্স অবসরের ঘোষণা দিলেও ইঙ্গিত দিয়েছেন ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট খেলে যাবেন তিনি।