সিরিয়ায় আরও ২৫০ সেনা পাঠানোর পরিকল্পনা ওবামার

110

04

সিরিয়ায় অতিরিক্ত ২৫০ জন সেনা পাঠানোর পরিকল্পনা করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা। গতকাল সোমবার হ্যানোভারের স্থানীয় সময় সকাল ১১টা ২৫ মিনিটে তিনি নিজের এ পরিকল্পনা ঘোষণা করবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, এসব সেনা ইসলামিক স্টেটের (আইএস) সঙ্গে লড়াইরত স্থানীয় সিরীয় বাহিনীগুলোর সঙ্গে কর্মরত মার্কিন সেনাদের সঙ্গে যোগ দেবে। সিরিয়ায় এখন ৫০ জন মার্কিন সেনা কর্মরত আছেন। নতুন ২৫০ সেনা যোগ দেয়ার পর সংখ্যাটি ৩০০ জনে দাঁড়াবে। আইএসের বিরুদ্ধে সম্প্রতি পাওয়া সাফল্যকে ধরে রাখার লক্ষ্যেই সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের সেনা সংখ্যা হঠাৎ বৃদ্ধি করা হচ্ছে বলে জানা গেছে। সিরিয়া ও ইরাকে আইএসের দখলকৃত ভূমি পুনরুদ্ধারে যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থিত বাহিনীর সামর্থ্যরে উপর আস্থা বাড়ছে। এই আস্থা আরো জোরদার করতে এসব সেনারা সহায়তা করবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। গত রোববার হ্যানোভারে সিরিয়ার সঙ্কট নিয়ে ওবামা জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মের্কেলের সঙ্গে আলোচনা করেছেন। সোমবার ওবামা নিজের পরিকল্পনা ঘোষণার পর মের্কেলকে সঙ্গে নিয়ে ইউরোপের অন্য বিশিষ্ট নেতাদের সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করবেন। আইএসআইএস বা আইএসআইএল নামেও পরিচিত ইসলামিক স্টেট (আইএস) ইরাকের মসুল নগরী ও সিরিয়ার রাক্কা নগরী দখল করে ঘাঁটি গেড়েছে। এখান থেকে বহির্বিশ্বে বড় ধরনের হামলা চালানোর হুমকি দিয়ে আসছে তারা। ইতিমধ্যে নভেম্বরে প্যারিসে এবং মার্চে ব্রাসেলসে চালানোর হামলার দায় স্বীকার করেছে গোষ্ঠীটি। প্রেসিডেন্টে ওবামা গৃহযুদ্ধ কবলিত সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের সেনা মোতায়েনে বিরোধিতা করলেও সেখানে যুক্তরাষ্ট্রের ৫০ জন সেনা মোতায়েন করা হয়েছে। বিশেষ অভিযান বাহিনীর এসব সেনা ‘সন্ত্রাসবাদ বিরোধী’ অভিযানে সেখানে আছেন বলে জানিয়েছিল ওবামা প্রশাসন। গেল পাঁচ বছর ধরে চলা সিরিয়ার গৃহযুদ্ধে এ পর্যন্ত অন্ততপক্ষে দুই লাখ ৫০ হাজার মানুষ নিহত হয়েছেন।