সাঁওতাল বিদ্রোহ দিবস পালিত

43

বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে  মঙ্গলবার চাঁপাইনবাবগঞ্জে ১৬৫তম সাঁওতাল বিদ্রোহ দিবস পালিত হয়েছে।
এ উপলক্ষে নাচোল উপজেলায় এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। নাচোল আদিবাসী একাডেমির আয়োজনে তাদের নিজস্ব কার্যালয়ে সভায় অংশ নেয় আদিবাসী মুক্তি মোর্চা, উত্তরবঙ্গ আদিবাসী ফোরামসহ ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। এতে বক্তব্য দেন, যতিন হেমব্রম, বিশ্বনাথ মাহাতো, জোনাব সরেন, বাবু লাল টপ্য, নির্মল কুজুরসহ অন্যরা।
বক্তারা বলেন, সাঁওতাল বিদ্রোহের মূল দাবি ছিল, জমি চাই, মুক্তি চাই। তৎকালীন জমিদার, মহাজন ও ব্রিটিশ সরকারের শোষণ ও নিপীড়নের হাত থেকে মুক্তি পেতে সাঁওতালরা বিদ্রোহ শুরু করেন। এতে নেতৃত্ব দেন সিধু-কানু-চাঁদ-ভৈরব নামে চার ভাই। বিদ্রোহের অন্যতম কারণ ছিল শান্তি ও নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে জীবন-জীবিকা নির্বাহ করা। এ বিদ্রোহে সাঁওতালদের পাশাপাশি বাঙালিরাও যোগ দেয়। তাই সাঁওতাল বিদ্রোহ আজও নিপীড়িত মানুষদের মুক্তির জন্য অনুপ্রেরণা হিসেবে টিকে আছে।
বক্তারা অ রো বলেন, অতি সম্প্রতি নাচোলে ক্ষুদ্র জাতিসত্তার এক নেতাকে দুর্বৃত্তরা মারধর করে। যা অতি নিন্দনীয় একটি ঘটনা। অতিদ্রুত এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তার এবং প্রশাসনকে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ারও দাবি জানান তারা।
এছাড়া রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার কাকনহাটে জাতীয় আদিবাসী পরিষদ, গোদাগাড়ী উপজেলা কমিটি ও নওগাঁর মুক্তির মোড়ে বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল (বাসদ)’র উদ্যোগেও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।