সজল ও মৌসুমী জুটির ‘কখনো আকাশ নীল’

3

জনপ্রিয় দুই অভিনয় তারকা সজল ও মৌসুমী হামিদ। বহুবার তারা জুটি হয়ে ছোট পর্দায় হাজির হয়েছেন। আবারও আসছেন নতুন নাটক নিয়ে। এবারের নাটকের নাম ‘কখনো আকাশ নীল’। আজ শুক্রবার রাত ৮টা ৩০ মিনিটে বৈশাখী টেলিভিশনে প্রচার হবে সজল-মৌসুমী জুটির নাটকটি। শাহিদা সুলতানার রচনায় নাটকটি পরিচালনা করেছেন নাসিরউদ্দীন মাসুদ। এতে আরও অভিনয় করেছেন মৌমিতা মৌ, হান্নান শেলী, হারুনুর রশীদ প্রমুখ। পরিচালক জানান, আত্মিক সম্পর্ক, প্রেম-ভালোবাসা আর অন্তর্দ্বন্দ্বই নাটকের মুল-উপজীব্য। যেখানে দেখা যাবে রিনি, বিনতা আর তাদের বাবা-মা তাদের সংসার। বিনতা বড় আর রিনি ছোট। মা-বাবা বড় মেয়ের বিয়ের জন্য উদগ্রীব। কিন্তু বারবারই পাত্ররা বড় বোন নয় ছোট বোনকেই বিয়ের জন্য পছন্দ করে, ফলে বিয়ে ভেঙ্গে যায়। এবার এক ভালো পাত্র আসে তারাও রিনিকেই পছন্দ করে। কিন্তু বিনতা এ বিয়ে ভাঙ্গার পক্ষে নয়। তার কথা যুগ অনেক এগিয়েছে এখন আর এসব নিয়ে বসে থেকে লাভ নেই।
বিনতার ভূবন আলাদা। সে একটি বেসরকারি ফার্মে চাকরি করেন। অফিসে তার কাজের প্রসংশা সর্বত্র। বিশেষ করে কাজের প্রতি তার আন্তরিকতার কারণেই অফিসের বস তাকে গুরুত্বের সাথে দেখেন। কিন্তু বসের রুমে প্রায়শই রিয়া নামে একটি মেয়েকে আনাগোনা করতে দেখা যায়। সবাই জানে এই রিয়া বসের বান্ধবী। তার সাথেই বসের বিয়ে হবে। এদিকে বিনতা তার ছোট বোনের বিয়েতে বসকে দাওয়াত দেয়। বসও বিয়েতে আসবেন বলে কথা দেন। চলছে রিনির বিয়ের অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠান শেষ হতে বেশ রাত হয়ে যায়। সবাই যে যার মতো চলে গেছে। বিয়ে বাড়ি শূন্য। এমন সময় বিনতার অফিসের বস এসে হাজির হন। এত রাতে তাকে দেখে অবাক হন বিনতার বাবা। পরিচয় পাওয়ার পর বলেন, বিনতা ছাদে আছে। ছাদে গিয়ে অন্য এক বিনতাকে খুঁজে পান অফিসের বসরূপী সজল! বিনতা চরিত্রে অভিনয় করেছেন মৌসুমী হামিদ। বস চরিত্রে সজল।