লিওনার্দো ডিকাপ্রিওর টুইটে বাংলাদেশ

4

বিশ্বের জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুদ্ধে অনেক বছর ধরেই দারুণ সোচ্চার লিওনার্দো ডিকাপ্রিও। জলবায়ু রক্ষায় বরাবরই নানান প্রচারণা চালিয়ে আসছেন হলিউডের তুমুল জনপ্রিয় এই অভিনেতা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তিনি যত পোস্ট দেন তার বেশিরভাগজুড়েই থাকে জলবায়ু-সম্পর্কিত খবরাখবর। এবারই প্রথম তার টুইটে উঠে এলো বাংলাদেশ। আরো নির্দিষ্ট করে বললে সেন্টমার্টিন দ্বীপ। গত শুক্রবার বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ৮টায় নিজের অফিসিয়াল টুইটারে ডিকাপ্রিও লিখেছেন, ‘সেন্টমার্টিন দ্বীপের চারপাশে গড়ে ওঠা সুরক্ষিত সামুদ্রিক অঞ্চলের জন্য বাংলাদেশ সরকার, স্থানীয় জনগোষ্ঠী ও এনজিওগুলোকে অভিনন্দন।

জীববৈচিত্র্যময় একটি অসাধারণ পরিম-লকে রক্ষা করবে এই প্রবাল প্রাচীর এবং এটা বাংলাদেশের সামুদ্রিক প্রাণীদের একমাত্র প্রাকৃতিক আবাসস্থল। ‘ সম্প্রতি বাংলাদেশ সরকার সামুদ্রিক জীববৈচিত্র্য সংরক্ষণের জন্য সেন্টমার্টিন দ্বীপ সংলগ্ন বঙ্গোপসাগরের প্রায় ১ হাজার ৭৪৩ বর্গকিলোমিটার এলাকাকে ‘সেন্টমার্টিন সামুদ্রিক সুরক্ষিত অঞ্চল’ হিসেবে ঘোষণা করেছে। এর ফলে জাহাজের অনিয়ন্ত্রিত চলাচল, অতিরিক্ত মাছ ধরা, বর্জ্য ও রাসায়নিক পদার্থের ডাম্পিং এবং প্রবাল প্রাচীর ও জীববৈচিত্র্যের জন্য ক্ষতিকর সবকিছু রোধ করা হবে।

এ কারণেই বাংলাদেশ সরকারকে অভিনন্দন জানিয়েছেন ‘টাইটানিক’ অভিনেতা। ৪৭ বছর বয়সী এই আমেরিকান তারকা অভিনেতা নিজেকে অভিনেতার বাইরে পরিচয় দেন ‘পরিবেশবাদী’ হিসেবে। তাঁর সর্বশেষ মুক্তি পাওয়া চলচ্চিত্র ‘ডোন্ট লুক আপ’-এ জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে পৃথিবীর ওপর নেতিবাচক প্রভাবের বক্তব্য গুরুত্ব পেয়েছে। সেরা অভিনেতার অস্কার পেয়েছেন যে ‘দ্য রেভেন্যান্ট’ ছবির জন্য সেখানেও জলবায়ু সংকটকে প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে।