লাখ লাখ শিক্ষার্থীর ঋণ মওকুফের ঘোষণা বাইডেনের

1

শিক্ষার্থীদের নেওয়া ঋণ মওকুফের ঘোষণা দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ঋণগ্রস্ত যেসব আমেরিকান শিক্ষার্থী বছরে ১ লাখ ২৫ হাজার ডলারের কম আয় করেন জনপ্রতি তাদের ১০ হাজার ডলার পর্যন্ত মওকুফ করার কথা জানিয়েছেন তিনি। এছাড়াও যেসব আর্থিকভাবে দুর্বল শিক্ষার্থী যারা গ্রান্ট সুবিধার অধীনে ঋণ পায় তাদের ঋণও ২০ হাজার ডলার পর্যন্ত মওকুফ করা হবে। শিগিগিরই বিস্তারিত পরিকল্পনা ঘোষণার কথা জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন। যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় বুধবার বাইডেন এই ঘোষণা দেন। খবর বার্তাসংস্থা রয়টার্স, বিবিসির ২০২০ সালে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারাভিযানের সময় জো বাইডেন এ বিষয়ে একটি প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেন, তার এই পদক্ষেপ সেসব পরিবারের জন্য যাদের এই সুবিধা সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন। মূলত করোনা মহামারিতে মধ্যবিত্ত লোকেরা বিশেষভাবে ক্ষতির মুখে পড়েছেন। এছাড়া নিজের এই পরিকল্পনার বিরুদ্ধে সমালোচনার জবাব দিয়ে জো বাইডেন বলেন, ঋণ মাফের এই পদক্ষেপের ফলে উচ্চ-আয়ের কোনো পরিবার উপকৃত হবে না।

তার ভাষায়, ‘শ্রমজীবী আমেরিকান এবং মধ্যবিত্তদের সাহায্য করার জন্য আমি কখনোই ক্ষমা চাইব না, বিশেষ করে সেই লোকদের কাছে নয় যারা ২ লাখ কোটি মার্কিন ডলার কর ছাড়ের পক্ষে ভোট দিয়েছিল। যাতে মূলত ধনী আমেরিকানরা এবং বৃহত্তম কর্পোরেশনগুলো উপকৃত হয়েছিল।’ বাইডেনের এমন ঘোষণায় স্বাগত জানিয়েছে অনেকে। তবে ঋণ মওকুফ করার ফলে মুদ্রাস্ফীতি বেড়ে যাতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এদিকে রিপাবলিকানদের বেশিরভাগই ছাত্র ঋণ ক্ষমার মতো পদক্ষেপের বিরোধিতা করেছিল। তারা এটিকে অন্যায্য বলেও অভিহিত করেছে। অন্যদিকে অনেক ডেমোক্র্যাট ঋণগ্রহীতা শিক্ষার্থীদের ৫০ হাজার মার্কিন ডলার পর্যন্ত ক্ষমা করার জন্য প্রেসিডেন্ট বাইডেনকে চাপ দিয়েছিলেন। পরিসংখ্যানে দেখা গেছে, এ পর্যন্ত প্রায় ৪ কোটি ৩০ লাখ মার্কিন নাগরিকের ওপর রয়েছে ১ লাখ ৬০ হাজার কোটি মার্কিন ডলারের শিক্ষা ঋণ।