রোমাঞ্চকর জয় পেল কেভিতোভা

7

কোর্টে সেরেনা উইলিয়ামসের আগের দিনের লড়াই বিশেষ করে নজর কেড়েছে পেত্রা কেভিতোভার। আয়লা তমইয়ানোভিচের বিপক্ষে হারের মুখে দাঁড়িয়েও সেরেনা যেভাবে লড়াই করেছিলেন, তার থেকে প্রেরণা নিয়ে রোমাঞ্চকর এক জয়ে ইউএস ওপেনের শেষ ষোলোয় উঠেছেন চেক রিপাবলিকের কেভিতোভা। গাব্রিনে মুগুরুসার বিপক্ষে বাংলাদেশ সময় আজ সোমবার সকালে তৃতীয় রাউন্ডের হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে একটা সময় হারের দ্বারপ্রান্তে চলে গিয়েছিলেন কেভিতোভা। সেখান থেকে দুটি ম্যাচ পয়েন্ট বাঁচিয়ে ঘুরে দাঁড়ান ৩২ বছর বয়সী এই খেলোয়াড়। টাইব্রেকারে গড়ানো শেষ সেটে জিতে নিশ্চিত করেন পরের রাউন্ডের টিকেট।

তৃতীয় রাউন্ডের ম্যাচটি তিনি জেতেন ৫-৭, ৬-৩, ৭-৬ (১২-১০) গেমে। নাটকীয় এই জয়ের পর দুইবারের উইম্বলডন চ্যাম্পিয়ন কেভিতোভা বলেন সেরেনার আগের দিনের লড়াই থেকে প্রেরণা পাওয়ার কথা। “আগের রাতে সেরেনা যেভাবে ম্যাচ পয়েন্টগুলা সেভ করছিল, তা ছিল অসাধারণ। আমি সেটাই করার চেষ্টা করছিলাম।” চলতি আসরে সবচেয়ে বড় আলোচনায় ছিল সেরেনার সম্ভাব্য অবসর। প্রথম দুই রাউন্ডে দারুণ জয়ের পর গত শুক্রবার তৃতীয় রাউন্ডে তমইয়ানোভিচের বিপক্ষে পাঁচটি ম্যাচ পয়েন্ট সেভ করেও শেষ পর্যন্ত হেরে যান ৪০ বছর বয়সী সেরেনা। ম্যাচ শেষে যদিও টেনিসকে একেবারে বিদায় জানাননি তিনি। নারী এককের নাম্বার ওয়ান ইগা শিয়াওতেক দ্বিতীয় সেটে কিছুটা শঙ্কার মুখে পড়েছিলেন।

প্রথম সেট সহজে জয়ের পর দ্বিতীয় সেটে হেরে বসেন প্রথম তিনটি গেম। তবে এরপর দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়িয়ে যুক্তরাষ্ট্রের লরেন ডেভিসকে ৬-৩, ৬-৪ গেমে হারিয়ে দেন পোলিশ তারকা। পুরুষ এককে সবচেয়ে ফেভারিট রাফায়েল দারুণ ছন্দে এগিয়ে চলেছেন ২৩তম গ্র্যান্ড স্ল্যামের আশায়। এ বছরের অস্ট্রেলিয়ান ওপেন ও ফরাসি ওপেন জয়ী তারকা তৃতীয় রাউন্ডে হারিয়ে দিয়েছেন রিচার্ড গাসকেকে।নাদালের সামনে দাঁড়াতেই পারেননি ফ্রান্সের গাসকে। ৬-০, ৬-১, ৭-৫ গেমে জিতে যান চারবারের ইউএস ওপেন চ্যাম্পিয়ন। এরই সঙ্গে গাসকের বিপক্ষে আধিপত্যও ধরে রাখলেন নাদাল। ১৮ বারের মুখোমুখি লড়াইয়ে প্রতিবারই জয় পেয়েছেন ৩৬ বছর বয়সী স্প্যানিশ তারকা।