মানহানির মামলা করতে যাচ্ছেন গেইল

78

08-

বেশ বিব্রত ও বিরক্ত ক্রিস গেইল। ২০১৫ ওয়ানডে বিশ্বকাপে এক নারীর সামনে অশালীনভাবে নিজেকে উপস্থান করেছিলেন গেইল। এমন অভিযোগ এনেছে অস্ট্রেলিয়ার ফেয়ারফ্যাক্স মিডিয়া। প্রথম থেকেই এমন অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন ক্যারিবীয়ন ব্যাটিং দানব। তবে এবার কথা নয়, ঐ মিডিয়ার বিরুদ্ধে মানহানির মামলাই করতে যাচ্ছেন গেইল। এমনটিই জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদ মাধ্যম দ্যা গার্ডিয়ান।
মামলা করতে ইতোমধ্যেই অস্ট্রেলিয়ার শীর্ষ পর্যায়ের একজন মিডিয়া আইনজীবীর কাছে দ্বারস্থ হয়েছেন ক্রিস গেইল।
শুরুটা অস্ট্রেলিয়ায় চলমান বিগব্যাশ টুর্নামেন্ট দিয়ে। যেখানে একটি ম্যাচে লাইভ সাক্ষাতকারে এক মহিলা সাংবাদিককে ডেটিংয়ের যাওয়ার প্রস্তাব দিয়েছিলেন গেইল। পরে অবশ্য ক্ষমাও চেয়েছিলেন। কিন্তু তাতে মন গলেনি গেইলের টিম কর্তৃপক্ষের। গেইলকে ১০ হাজার ডলার জরিমানা করে।
এমন ঘটনার পরই উঠে আসে ২০১৫ ওয়ানডে বিশ্বকাপের ঘটনা। যেখানে অস্ট্রেলিয়ার ফেয়ারফ্যাক্স মিডিয়া জানায়, গেল বিশ্বকাপেও এক মহিলার সঙ্গে অশোভন আচরণ করেছিলেন গেইল। তাদের ভাষ্যমতে, বিশ্বকাপের সময় সে সময় ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের সেবায় ছিলেন অস্ট্রেলিয়ার এক নারী। একদিন কাজের জন্য ওই নারী গেইলদের ড্রেসিংরুমে প্রবেশ করেছিলেন। তিনি ভেবেছিলেন সে সময় ওয়েস্ট ইন্ডিজের খেলোয়াড়রা মাঠে রয়েছেন। রুমে ঢুকে তিনি তোয়ালে পড়া ক্রিস গেইলকে দেখতে পান। এরপর গেইল নিজেকে অশালীনভাবে উপস্থাপন করে কথা বলেন।