মন্টেনেগ্রোতে বন্দুকধারীসহ নিহত ১২

5

মন্টেনেগ্রোতে একজন বন্দুকধারী নির্বিচারে গুলি চালিয়েছে। গার্ডিয়ান জানিয়েছে, সেটিনজে শহরে ওই বন্দুকধারী নির্বিচারে গুলি চালানোর ঘটনায় নিহতদের মধ্যে দুজন শিশু রয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশের গুলিতে বন্দুকধারী নিহত হয়েছে। রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনের খবরে বলা হয়েছে, স্থানীয় সময় শুক্রবার ৩৪ বছর বয়সী বন্দুকধারী গুলি চালালে ছয়জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে পুলিশের একজন সদস্যও রয়েছেন। আরটিসিজি জানিয়েছে, শিশুসহ রাস্তায় হাঁটতে থাকা লোকজনের ওপর এলোপাতাড়ি গুলি চালাতে থাকে বন্দুকধারী।

মন্টেনেগ্রোর পুলিশ পরিচালক জোরান ব্রিডজানিন বলেন, বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে ৩৪ বছর বয়সী এক ব্যক্তি শিকারের বন্দুক দিয়ে ১১ জনকে হত্যা করেছে। তাদের মধ্যে দুই সহোদর রয়েছে। একজনের বয়স আট বছর এবং অন্যজনের ১১ বছর। তাদের গুলিবিদ্ধ মা বিকেলে একটি হাসপাতালে মারা গেছেন। তিনি আরো বলেন, তিনজনকে গুলি করার পর বন্দুকধারী ভবন থেকে বের হয়ে যায়। এরপর আট পথচারীকে হত্যা করে। গোলাগুলির ঘটনায় একজন পুলিশ সদস্যও আহত হয়েছেন। মন্টেনেগ্রোতে সন্ধ্যা থেকে তিন দিনের শোক ঘোষণা করা হয়েছে। এ ঘটনায় শোক জানিয়ে টুইট করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট মিলো জুকানোভিচ। নিহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন তিনি। সূত্র : গার্ডিয়ান।