ব্যাটসম্যানদের দুষছেন বাঁহাতি উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান সৌম্য

18

সৌম্য সরকার উড়ন্ত সূচনা এনে দিয়েছিলেন। কিন্তু তার সুবিধা কাজে লাগাতে পারেননি পরের ব্যাটসম্যানরা। জয়ের সম্ভাবনা জাগিয়ে হারের তেতো স্বাদ পেতে হল বাংলাদেশকে। পরাজয়ের জন্য ব্যাটসম্যানদের দুষেছেন বাঁহাতি উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান। শেষ ১০ ওভারে বাংলাদেশের দরকার ছিল ৯৯ রান, হাতে ছিল ৭ উইকেট। বোলারদের জন্য পিচে কিছু ছিল না। আহামরী বোলিং করেননি কেউ। সৌম্য মনে করেন, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, সাব্বির রহমান ও মাহমুদউল্লাহর কেউ একজন দাঁড়িয়ে গেলে সহজেই জিতত বাংলাদেশ। আমাদের ৩ থেকে ৬ নম্বর ব্যাটসম্যানের কেউ যদি বড় রান করতে পারতাম তাহলে হয়তো ভালো হত। (জেতা) সহজ হত। তখন শেষ ১০ ওভার নিয়ে চিন্তা করতে হত না। একটা থিতু ব্যাটসম্যান থাকত আরও সহজে অনেক কিছু হতে পারত। দক্ষিণ আফ্রিকার ১৯৫ রান তাড়ায় বাংলাদেশ করে ১৭৫ রান। সৌম্য জানান, জেতা সম্ভব ধরে নিয়ে ব্যাটিংয়ে নেমেছিলেন তারা। ১৩০ রানের একটা পরিকল্পনা থাকে, ১৯০ রানের আরেকটা পরিকল্পনা থাকে। অবশ্যই ১৯৬ রানের এই লক্ষ্য জেতার মতোই ছিল। আমরা মানসিকভাবে প্রস্তুত ছিলাম, যতটুকু সম্ভব আমরা ইতিবাচক ক্রিকেট খেলব। নিজেদের শতভাগ দিয়ে যতটুকু যাওয়া যায়।
নিজেদের শতভাগ দিতে পারেনি বাংলাদেশ। পথ হারিয়ে পেয়েছে আরেকটি হারের স্বাদ। তবে সিরিজে প্রথমবারের মতো লড়াই করার সান্ত¡না পাওয়া গেছে। সৌম্যদের লক্ষ্য পরের ম্যাচে আরেকটু এগোনো, সফরে প্রথম জয়।