বুরকিনা ফাসোয় বিদ্রোহীদের হামলায় নিহত ৫০

3

আফ্রিকার দেশ উত্তর বুরকিনা ফাসোর একটি গ্রামে সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের হামলায় অন্তত ৫০ বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছেন। একজন সরকারি কর্মকর্তার বরাতে গতকাল মঙ্গলবার আল-জাজিরা এ তথ্য জানিয়েছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সূত্রের বরাতে প্রতিবেদনে বলা হয়, সশস্ত্র হামলাকারীরা শনিবার ও রোববার সেনো প্রদেশের সেতেঙ্গা এলাকায় রাতের অন্ধকারে হামলা চালিয়েছে। সীমান্তবর্তী এলাকাটি এমন এক জায়গায় অবস্থিত যেখানে আল-কায়েদা এবং আইএস-এর সঙ্গে সম্পৃক্ত যোদ্ধারা সশস্ত্র সন্ত্রাসী কর্মকা- চালিয়ে থাকে। তবে হামলার দায় তাৎক্ষণিকভাবে কোনো গোষ্ঠী স্বীকার করেনি। বুরকিনা ফাসোর সরকারের মুখপাত্র লিওনেল বিলগো গত সোমবার বলেছেন, এখন পর্যন্ত ৫০টি মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। কিন্তু নিহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। তবে সশস্ত্র বিদ্রোহীদের হামলায় মৃতের সংখ্যা নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন বিবরণ পাওয়া যাচ্ছে। আফ্রিকার এই দেশটির নিরাপত্তা কর্মকর্তারা গত সোমবার রয়টার্সকে বলেছেন, হামলায় অন্তত ১০০ জন প্রাণ হারিয়েছেন। অন্যদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি স্থানীয় সূত্র জানিয়েছে, হামলার পর মৃতের প্রাথমিক সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৬৫ জনে। উল্লেখ্য, ২০১৫ সাল থেকে সশস্ত্র মিলিশিয়া গোষ্ঠীগুলোর ক্রমবর্ধমান হামলা মোকাবিলায় রীতিমতো সংগ্রাম করছে বুরকিনা ফাসো। সশস্ত্র এসব গোষ্ঠীগুলোর বেশিরভাগই জঙ্গিগোষ্ঠী আল কায়দা এবং আইএস’র সঙ্গে সম্পৃক্ত। এছাড়া, গত এক দশকে আফ্রিকার এই দেশটিতে সহিংসতা অনেক বেড়েছে এবং জোরালো হয়েছে। আর এতে প্রতি বছর হাজার হাজার বেসামরিক লোক নিহত হয়েছেন।