বিশ্ব ভ্রমণে বের হওয়া ভারতীয় যুবক চাঁপাইনবাবগঞ্জে

61

বিশ্বে প্লাস্টিকের বিপদজনক প্রভাবের ব্যাপারে সচেতনতা বাড়াতে বিশ্ব ভ্রমণে বের হয়েছেন ভারতের মহারাষ্ট্রের নাগপুরের যুবক রোহন আগরওয়াল (২০)। তার বাংলাদেশ সফরের সময় চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. রুহুল আমিনের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেছেন তিনি।
মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টায় রুহুল আমিনের সাথে তার বাসভবনে সাক্ষাতের সময় আরো উপস্থিত ছিলেনÑ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ডা. সাইফ জামান আনন্দ, নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজ ছাত্রলীগ শাখার সভাপতি মো. আনোয়ার হোসেন, সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুল আওয়াল তুষারসহ অন্যরা।
সৌজন্য সাক্ষাৎকালে রোহান আগরওয়াল তার ভ্রমণের অভিজ্ঞতা তুলে ধরে বলেন, ভারত থেকে শুরু করে এ যাত্রায় আমি ১৫ হাজার কিলোমিটার পথ পায়ে হেঁটেছি এবং কখনো কখনো যানবাহনের সাহায্য নিয়েছি। আমি ৮০ দিনে ভারতের ২৭টি অঙ্গরাজ্য এবং বাংলাদেশের ৩০টি জেলা ভ্রমণ করে ৮৫০ দিনের বেশি সময় ভ্রমণ করছি। আমার এই ভ্রমণের মূল উদ্দেশ্য হলো, প্লাস্টিক এবং এর বিপজ্জনক প্রভাব সম্পর্কে বিশ্ববাসীর মধ্যে জনসচেতনতা তৈরি করা।
তিনি আরো বলেন, আমি অনেক স্কুল এবং ইনস্টিটিউট পরিদর্শন করেছি এবং আগামীর প্রজন্মের কাছে সবুজ বিশ্ব গড়তে আহ্বান জানিয়েছি।
বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে আগ্রহী এ যুবক এ সময় বীর মুক্তিযোদ্ধা রুহুল আমিনের কাছ থেকে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময়কার যোদ্ধা হিসেবে তার অভিজ্ঞতা, রাজনৈতিক কর্মকা- ও মুক্তিযুদ্ধের বিভিন্ন দিক সম্পর্কে আলোচনা করেন। এসময় তিনি বীর মুক্তিযোদ্ধা রুহুল আমিনকে তার দেশের ঐতিহাসিক নিদর্শন ও কৃষ্টি-কালচার দেখতে তার শহর মহারাষ্ট্র ও ভারত ভ্রমণের আমন্ত্রণ জানান।
এসময় তিনি তার আগামী এই ভ্রমণ পরিকল্পনা সম্পর্কে বলেন, আমি পরবর্তী ভ্রমণে সাইবেরিয়ার ওমিয়াকমে পায়ে হেঁটে যাব, যেখানে তাপমাত্রা মাইনাস ৭২ ডিগ্রি সেলসিয়ার এবং এটি পৃথিবীর সবচেয়ে ঠা-া স্থান এবং আমিই প্রথম দক্ষিণ এশীয় হিসেবে স্থলপথে ভারত থেকে সেখানে পৌঁছাব। সাইবেরিয়া যাওয়ার পথে আরো ৫ বছরে দক্ষিণ এশিয়ার ১২-১৩টি দেশ ভ্রমণের পরিকল্পনা আছে বলে তিনি জানান ।