বিশ্বের দীর্ঘতম নৌবিহার এবার ভারতেই!

4

ভারতে চালু হয়ে গেল বিশ্বের দীর্ঘতম নৌবিহার, এটি যাবে বাংলাদেশের উপর দিয়ে। উত্তর প্রদেশ থেকে অসম পর্যন্ত চালু হলো এই বিলাসবহুল নৌবিহার। যাত্রাপথে পড়বে বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলার উপর দিয়ে যাওয়া নৌপথ। পর্যটকদের নিয়ে এই নৌবিহারে প্রায় ৩২০০ কিলোমিটার পথ পাড়ি দেয়া হবে। পথে পড়বে মোট ২৭টি নদী। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী গতকাল শুক্রবার মকর সংক্রান্তির ঠিক আগে এই নৌবিহারের উদ্বোধন করলেন। নৌপথ কর্তৃপক্ষের এক কর্মকর্তা বলেছেন–আমাদের সভ্যতা নদীগুলির পাশেই গড়ে উঠেছিল। তাই নৌবিহারের মাধ্যমে পর্যটকেরা আমাদের সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য সম্পর্কে দারুণ এক অভিজ্ঞতা অর্জন করবেন। নৌবিহারে অংশ নেয়া পর্যটকেরা ৫১ দিনে ৫০টি পর্যটনকেন্দ্র ঘুরে দেখার সুযোগ পাবেন। এর মধ্যে রয়েছে বারাণসীর গঙ্গা, কাজিরাঙা জাতীয় উদ্যান, সুন্দরবনের মতো পর্যটনকেন্দ্র। যাত্রাপথের ৩২০০ কিলোমিটারের মধ্যে বাংলাদেশেই রয়েছে প্রায় ১১০০ কিলোমিটার। বারাণসীতে এই নৌবিহারের শুরু। তারপর সেটি বিহারের পাটনা, পশ্চিমবঙ্গের কলকাতা-সহ বিভিন্ন পর্যটনস্থান ছুঁয়ে প্রবেশ করবে বাংলাদেশের জলপথে। বাংলাদেশে এই নৌবিহারের যাত্রাপথে পড়বে মোংলা বন্দর, সুন্দরবনের কটকা সমুদ্রসৈকত, হারবাড়িয়া, বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ, বরিশাল, মেঘনা ঘাট, নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ, মানিকগঞ্জের আরিচা ঘাট, টাঙ্গাইল, সিরাজগঞ্জ ও কুড়িগ্রামের চিলমারী। এরপর নৌবিহারটি ফের ভারতে প্রবেশ করে শেষ হবে অসমের ডিব্রুগড়ে। বিলাস ও রুচির চূড়ান্ত এই নদীযাত্রাযান। এর ডেক, এর ডাইনিং হল, এর ড্রয়িংরুম, এর কমন স্পেস- প্রতিটি জায়গাই রঙে ও মেজাজে মনকাড়া। যা দেখেই বলে দেয়া যায়, যাত্রীদের পক্ষে বিষয়টি একটা দারুণ অভিজ্ঞতা হতে চলেছে।