বাংলাদেশে ভারী বিনিয়োগে আগ্রহী যুক্তরাজ্য

47

gourbangla logoবাংলাদেশের আইসিটি, আইটি, প্যাট্রোকেমিক্যাল ও অ্যাগ্রো প্রোডাক্ট খাতে ভারী বিনিয়োগের আগ্রহ প্রকাশ করেছে যুক্তরাজ্য। মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে ৩টার দিকে ডিপার্টমেন্ট ফর ইন্টারন্যাশনাল ডেভেলপমেন্টের মহাপরিচালক ডেভিড কেনেডি বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে এই আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। এরপর যৌথ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সম্মেলনে তোফায়েল আহমেদ বলেন, এখন যুক্তরাজ্য বাংলাদেশে বিনিয়োগের বড় অংশীদার। গত অর্থবছরে সেদেশে আমরা চার বিলিয়ন ডলারের পণ্য রফতানি করেছি। বাংলাদেশে যুক্তরাজ্যের দুইশোর বেশি কোম্পানি বিনিয়োগ করেছে। বাংলাদেশ যুক্তরাজ্যের আর্মস ছাড়া সব পণ্য শুল্কমুক্ত সুবিধা দিয়ে আসছে। যুক্তরাজ্য ইইউ থেকে বেরিয়ে গেলেও এই বাণিজ্যে কোনো প্রভাব পড়বে না। ২০২১ সালের মধ্যে আমরা যে ৫০ মিলিয়ন গার্মেন্ট পণ্য রফতানি করবো, সেখানে আমরা তাদের সুবিধা পাবো। আমরা তাদের জন্য একটি আলাদা ইকনোমিক জোন করে দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছি। ডেভিড কেনেডি বলেন, বাংলাদেশের জিডিপি গ্রোথ সারাবিশ্বকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে। ওইসব ইকনোমিক জোনে আমরা ভারী বিনিযোগ করবো। এছাড়া সদ্য ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট জয়ে সব বাংলাদেশিদের তিনি অভিনন্দন জানান। সম্মেলনে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুন, বাংলাদেশে নিযুক্ত ব্রিটিশ হাইকমিশনার অ্যালিসন ব্লেক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।