নিরপেক্ষ ইসি না হলে জাতি তা গ্রহণ করবে না : ফখরুল

107

Fokrul-islamনির্বাচন কমিশন (ইসি) পুনর্গঠন নিয়ে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলগুলোর সংলাপের পরও যদি নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশন গঠন করা না হয়, তাহলে তা দেশের মানুষ গ্রহণ করবে না বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।  বৃহস্পতিবার বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা ও সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৮১তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে নেতাকর্মীদের নিয়ে তাঁর সমাধিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান দলটির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। শ্রদ্ধা জানানো শেষে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন। নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠনে রাষ্ট্রপতির উদ্যোগ প্রশংসনীয় উল্লেখ করে মির্জা ফখরুল বলেন, গণতন্ত্র কখনোই ফলপ্রসূ হবে না, কার্যকরী হবে না যদি রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে আলাপ-আলোচনা না থাকে। একটা সহনশীল সমঝোতার মধ্য দিয়ে, সংলাপের মধ্য দিয়ে গণতন্ত্র বিকশিত হয়। সেটা আমাদেরও কথা, রাষ্ট্রপতি বলেছেন, সে জন্য তাঁকেও ধন্যবাদ। আশা করব যে রাষ্ট্রপতি এ ব্যাপারে অত্যন্ত কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন। যদি নিরপেক্ষ সার্চ কমিটি বা নির্বাচন কমিশন গঠন না হয়, এ দেশের মানুষ তা কখনোই গ্রহণ করবে না। নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশন গঠন ইস্যুতে রাষ্ট্রপতি জাতিকে হতাশ করবেন না বলেও আশা প্রকাশ করেন বিএনপির মহাসচিব। এর আগে সকাল থেকেই বিএনপির বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা খ- খ- মিছিল নিয়ে জড়ো হতে থাকেন শেরেবাংলা নগরে অবস্থিত দলের প্রতিষ্ঠাতার কবর এলাকায়। বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে নিয়ে মাজার প্রাঙ্গণে আসেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। জিয়াউর রহমানের কবরে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানোর পর দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে মোনাজাত করেন তিনি।