ডিসেম্বর থেকে ই-পাসপোর্ট বিতরণ শুরু : অর্থমন্ত্রী

10

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসে ই-পাসপোর্ট বিতরণ শুরু হবে। বুধবার সচিবালয়ে কেবিনেট ডিভিশনে কেবিনেট কমিটি অন ইকোনোমিক অ্যাফেয়ার্স (সিসিইএ) ও কেবিনেট কমিটি অন গভর্নমেন্ট পারচেজের (সিসিজিপি) বৈঠক শেষে তিনি সাংবাদিকদের এ কথা বলেন।
মুস্তফা কামাল বলেন, ‘জার্মানিভিত্তিক ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান এ ব্যাপারে বহুদূর অগ্রসর হয়েছে। বৈঠকে আমাদের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আশ্বস্ত করেছেন যে এ বছরের ডিসেম্বর নাগাদ ই-পাসপোর্ট বিতরণের জন্য প্রয়োজনীয় সব কাজ সম্পন্ন করা হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডিসেম্বরে ই-পাসপোর্ট উদ্বোধন করবেন বলে মন্ত্রী আশা করেন।
অর্থমন্ত্রী জানান, সিসিইএ বৈঠকে ২০ লাখ মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট (এমআরপি) বুকলেট ও ২০ লাখ লেমিনেশন ফয়েল ক্রয়ের প্রস্তাব মঞ্জুর করা হয়। তিনি আরো বলেন, ‘এটি এমআরপি’র শেষ সংস্করণ। ডাইরেক্ট প্রকিউরমেন্ট মেথড (ডিএমপি)’র আওতায় চার কোটি টাকা মূল্যের জিনিসপত্র ক্রয় করা হবে। তিনি বলেন, সিসিইএ বৈঠকে ‘পিপিপি’র মাধ্যমে আউটার রিং রোডের (দক্ষিণ অংশ) নির্মাণ’ প্রকল্পও অনুমোদিত হয়। অর্থমন্ত্রী জানান, সিসিজিপি বৈঠকে ৫টি প্রস্তাব অনুমোদিত হয়। প্রস্তাবগুলো হচ্ছে- বৃহত্তম ঢাকা টেকসই নগর পরিবহন প্রজেক্ট বিআরটি গাজীপুর এয়ারপোর্টের আওতায় প্রকৌশল, অধিগ্রহণ ও নির্মাণ ব্যবস্থাপনার (ইপিসিএম) জন্য পরামর্শ সেবা, পল্লি অঞ্চলে শতভাগ বিদ্যুৎ নিশ্চিতের জন্য ট্রান্সমিশন নেটওয়ার্কের বৃদ্ধি (ঢাকা, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট), পল্লি বিদ্যুৎ ট্রান্সমিশন সিস্টেমের সক্ষমতা বৃদ্ধি, দয়াগঞ্জ ক্লিনারদের কলোনি নির্মাণের জন্য সংস্কার চুক্তি মূল্য এবং ঢাকা সিটি করপোরেশন এলাকার ক্লিনারদের জন্য গৃহয়ান প্রকল্পের অধীনে ধলপুর ক্লিনারদের কলোনি নির্মাণ।