টাকার অভাবে বাড়ি বিক্রি করলেন অ্যাম্বার হার্ড

3

প্রাক্তন স্বামী অভিনেতা জনি ডেপের কাছে মানহানি মামলায় হেরে অর্থ কষ্টে রয়েছেন অভিনেত্রী অ্যাম্বার হার্ড। এবার তার ক্যালিফোর্নিয়ার বাড়িটিও বিক্রি করলেন তিনি। নিউ ইয়র্ক পোস্টের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানা গেছে। গত ১৮ জুলাই ‘অ্যাকুয়াম্যান’ সিনেমাখ্যাত এই অভিনেত্রীর বাড়িটি ১.০৫ মিলিয়ন মার্কিন ডলারে বিক্রি হয়েছে। ২০১৯ সালে অ্যাম্বার হার্ড ৫ লাখ ৭০ হাজার মার্কিন ডলারের বিনিময়ে এই বাড়িটি কেনেন। ইউকা ভ্যালিতে ছয় একর জায়গাজুড়ে অবস্থিত এই বাড়িতে তিনটি বেডরুম ও তিনটি বাথরুম রয়েছে। এ ছাড়া বাহিরের দিকে আছে মজবুত লোহার তৈরি দরজা ও ডাবল গ্রিডল স্টোভযুক্ত রান্নাঘর। এখানেই শেষ নয়, ১২০০ বর্গফুটের গ্যারেজও রয়েছে। এই বাড়ি থেকে পাহাড়, পর্বত ও মরুভূমির অপরূপ দৃশ্য উপভোগ করা যায়। নিউ জার্সির বাসিন্দা রিকার্ড এবং ক্যারো-জেনেট জোর্জেনসন এই সম্পত্তির নতুন মালিক হচ্ছেন বলে জানা গেছে।

গত ১ জুন মানহানির মামলার রায় জনি ডেপের পক্ষে দেন আদালত। আদালতের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, মানহানির ক্ষতিপূরণ বাবদ ডেপকে ১০ মিলিয়ন ৩৫০ হাজার মার্কিন ডলার দিতে হবে হার্ডকে। তবে কিছু ক্ষেত্রে এ মামলার রায় অ্যাম্বার হার্ডের পক্ষেও গিয়েছে। আদালত বলেছেন, ক্ষতিপূরণ হিসেবে হার্ড পাবেন ২ মিলিয়ন ডলার। বর্তমানে জরিমানা বাবদ অ্যাম্বারকে আরো ৫ মিলিয়ন মার্কিন ডলার দিতে হবে। কিন্তু এই অর্থ তার কাছে নেই বলে জানিয়েছেন এই অভিনেত্রী। ধারণা করা হচ্ছে, জরিমানার এই অর্থ জোগার করতে ও আর্থিক সমস্যা সমাধানের জন্যই বাড়িটি বিক্রি করেছেন অ্যাম্বার।