জাটকা ইলিশ সংরক্ষণে পদ্মায় মোবাইল কোর্ট : ২ জেলেকে জরিমানা, কারেন্ট জালসহ জাটকা উদ্ধার

11

জাটকা ইলিশ সংরক্ষণের লক্ষে চাঁপাইনবাবগঞ্জের পদ্মা নদীতে গত বুধবার ও বৃহস্পতিবার মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেছে সদর ও শিবগঞ্জ উপজেলা মৎস্য অফিস। দুই দিনের মোবাইল কোর্টের অভিযানে ১৭ হাজার মিটার কারেন্ট জাল ও দেড় কেজি জাটকা জব্দ করা হয়। একই সঙ্গে কারেন্ট জাল দিয়ে মাছ শিকারের অপরাধে দুই জেলেকে জরিমানা করা হয়।
সিনিয়র সদর উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মাসুদ রানা জানান, বৃহস্পতিবার সকাল ৭টা হতে সাড়ে ৯টা পর্যন্ত চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলায় পদ্মা নদীতে জাটকা সংরক্ষণের লক্ষে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হয়। এসময় সুলতানগঞ্জ ঘাট হতে উজানে রানীনগর পর্যন্ত মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে ২ হাজার মিটারের ২টি কারেন্ট জাল ও ১ কেজি জাটকা জব্দ করা হয়। এছাড়া কারেন্ট জাল দিয়ে মাছ ধরার অপরাধে দুজন জেলেকে ৩০০ টাকা করে মোট ৬০০ টাকা জরিমানা করা হয়। কারেন্ট জালগুলো সুলতানগঞ্জ ঘাটে জনসমক্ষে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয় এবং জাটকাগুলো অনুপনগর মোল্লাপাড়া হাফিজিয়া মাদরাসা ও এতিমখানায় বিতরণ করা হয়।
নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইফফাত জাহান এবং প্রসিকিউটরের দায়িত্ব পালন করেন সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো. মাসুদ রানা।
অন্যদিকে ‘মুজিববর্ষে শপথ নেব, জাটকা নয় ইলিশ খাব’ এই স্লোগানকে সামনে রেখে গত বুধবার শিবগঞ্জের পদ্মা নদীতে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এতে নেতৃত্ব দেন সিনিয়র শিবগঞ্জ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা আবু বক্কর ছিদ্দিক। অভিযানে জাটকাসহ ১৫ হাজার মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়। পরে জাটকা মাছ শেখ রাসেল শিশু প্রশিক্ষণ ও পুনর্বাসন কেন্দ্রে বিতরণ করা হয়।
উল্লেখ্য, গত ১ নভেম্বর থেকে আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত জাটকা সংরক্ষণের লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে।