দৈনিক গৌড় বাংলা

মঙ্গলবার, ২৩শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৮ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৭ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর ও নাচোলে বজ্রপাতে নারীসহ তিনজন নিহত

 

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর ও নাচোল উপজেলায় বজ্রপাতে তিনজন নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার বিকেলে বজ্রপাত হলে তারা মারা যান।
সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছা. তাছমিনা খাতুন জানান, সদর উপজেলার গোবরাতলা ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের আমারক গ্রামে বজ্রপাতে কমলা রানী (৫০) নামে এক নারী মারা গেছেন। মারা যাওয়া কমলা রানী ওই গ্রামের পরশ রায় পটলের স্ত্রী।
গোবরাতলা ইউনিয়ন পরিষদের ৯নং ওয়ার্ড সদস্য মো. রাফেজ বলেন- বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে মুষলধারে বৃষ্টি শুরু হয়। এসময় নিজ বাড়িতে থাকা অবস্থায় বজ্রপাত হলে ঘটনাস্থলেই কমলা রানীর মৃত্যু হয়।
অপরদিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল উপজেলায় বৃহস্পতিবার বিকেলে কৃষিজমিতে কাজ করার সময় বজ্রপাতে দুজনের মৃত্যু হয়েছে। তারা হলেন- নাচোল সদর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের ঝলঝলিয়া গ্রামের ওসমান আলী (৩০) ও গোমস্তাপুর উপজেলার শ্যামপুর এলাকার জিনারপুর গ্রামের মোহাম্মদ উজ্জ্বল (৫০)।
স্থানীয়রা জানান, নাচোল উপজেলার নেজামপুর ইউনিয়নের কামারজগদইল দিঘীপাড়া গ্রামের পাশে কৃষিজমিতে ৬ জন কৃষক কাজ করছিলেন। বিকাল ৫টার দিকে বজ্রপাতে গুরুতর আক্রান্ত হন গোমস্তাপুর উপজেলার শ্যামপুর এলাকার জিনারপুর গ্রামের মন্তাজ আলীর ছেলে মোহাম্মদ উজ্জ্বল। এ সময় স্থানীয়রা তাকে দ্রুত নাচোল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উজ্জলকে মৃত ঘোষণা করেন। অন্য ৫ কৃষক সুস্থ আছেন।
অন্যদিকে উপজেলার ঝলঝলিয়া গ্রামে কৃষিজমিতে কাজ করার সময় ব্রজপাত হলে মৃত্যু হয় ওসমান আলীর। মৃত ওসমান ঝলঝলিয়া গ্রামের মাওলানা মোহা. আখেরের ছোট ছেলে।
নাচোল থানার অফিসার ইনচার্জ তারেকুর রহমান সরকার জানান, জমিতে কৃষি কাজ করার সময় বজ্রপাত হলে পৃথক দুটি স্থানে দুজন কৃষকের মৃত্যুর খবর পেয়েছে পুলিশ। দুজনের মরদেহ স্থানীয়রা তাদের বাড়িতে নিয়ে গেছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা সম্পন্ন করতে পুলিশ কর্মকর্তাদের মৃত্যু ব্যক্তিদের বাড়িতে পাঠানো হয়েছে।

About The Author