চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচন সভাপতি জবদুল সেক্রেটারি কনক

21

চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটির বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার জেলা আইনজীবী সমিতি ভবনে সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে ভোট গ্রহণ করা হয়। এবার সভাপতি পদে বিশিষ্ট আইনজীবী জবদুল হক ও সেক্রটারি জেনারেল পদে মো. মাহমুদুল ইসলাম কনক নির্বাচিত হয়েছেন।
জানা যায়, সভাপতি ও সেক্রটারি জেনারেলসহ ১৫টি পদের বিপরীতে দুটি প্যানেল থেকে মোট ৩০ জন প্রার্থী এবারের নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। তাদের মধ্যে দুজন নারী প্রার্থীও ছিলেন।
সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ মনোনীত প্যানেল থেকে সভাপতি পদে সাবেক পিপি অ্যাডভোকেট জবদুল হক ও সেক্রেটরি জেনারেল পদে অ্যাডভোকেট মো. মনিরুল ইসলামসহ ১৫ জন এবং সোলায়মান বিশু ও কনক পরিষদে সভাপতি পদে অ্যাডভোকেট সোলায়মান বিশু ও সেক্রেটারি জেনারেল পদে অ্যাডভোকেট মো. মাহমুদুল ইসলাম কনকসহ ১৫ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।
জবদুল হক ১০০ ভোট পেয়ে সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী অ্যাডভোকেট সোলায়মান বিশু পেয়েছেন ৯৪ ভোট। সেক্রেটারি জেনারেল পদে মাহমুদুল ইসলাম কনক ১২৩ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মনিরুল ইসলাম পেয়েছেন ৭৪ ভোট।
দুটি প্যানেল থেকে মোট ৩০ জনের মধ্যে জবদুল-মনিরুল প্যানেল থেকে সভাপতি জবদুল হক, সহসভাপতি সোহরাব আলী, সহ-সেক্রেটারি জেনারেল আনোয়ার সাদাত, সেক্রেটারি ফর কালচার অ্যান্ড ম্যাগাজিন তানভির রহমান, সদস্য মুহাম্মদ সারিউল্লাহ নির্বাচিত হয়েছেন।
অপর দিকে সোলায়মান বিশু-কনক পরিষদ থেকে সেক্রেটারি জেনারেল পদে মাহমুদুল ইসলাম কনক, সহসভাপতি নুরুল ইসলাম সেন্টু, সহ-সেক্রেটারি জেনারেল ফরহাদ হোসেন মিলন, সেক্রেটারি ফর অ্যাকাউন্টস জাকির হোসেন, সেক্রেটারি ফর লাইব্রেরি মোহাম্মদ দেলোয়ার জাহান এবং সদস্য পদে রহিমা খাতুন, জহির জামান জনি, মোহাম্মদ নুর আল সিদ্দিকী, আবুল কালাম আজাদ ও নাহিদ ইবনে মিজান নির্বাচিত হয়েছেন।
ভোটে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের দায়িত্ব পালন করেন অ্যাডভোকেট তাহির জামিল এবং সহকারী নির্বাচন কমিশনার হিসেবে ছিলেন এ বি এম সাইদুল ইসলাম ও অ্যাডভোকেট এতমাতুদৌলা মুকুট।