চাঁপাইনবাবগঞ্জে স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের সমন্বয় সভা

16

চাঁপাইনবাবগঞ্জে স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের দিনব্যাপী সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার শহরের প্রয়াস মানবিক উন্নয়ন সোসাইটির নকীব হোসেন মিলনায়তনে এ সমন্বয় সভা দুই পর্বে অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ হেলথ ওয়াচ ও প্রয়াস মানবিক উন্নয়ন সোসাইটির সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত সমন্বয় সভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের সভাপতি ও নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর সুলতানা রাজিয়া।
সকাল ১০টায় প্রথম পর্বে জেলা ও নাচোল উপজেলা স্বাস্থ্য অধিকার যুব ফোরামের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়।
সভায় স্বাগত বক্তব্য দেন প্রয়াসের নির্বাহী পরিচালক ও জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের সাধারণ সম্পাদক হাসিব হোসেন। তিনি বলেন, আমরা সবাই স্বেচ্ছাশ্রমে কাজ করছি। স্বেচ্ছাশ্রমে কাজ করে লাভটা হলোÑ আপনার অন্যের প্রতি মমত্ববোধ তৈরি হয়, আগামীতে মহৎ কিছু কাজের সাথে জড়িত হওয়ার আগ্রহ তৈরি হয় এবং সামাজিক কাজগুলো আপনি সহজভাবে নিতে পারেন। তিনি বলেন, স্বেচ্ছাসেবী হলে একাকীত্ব থাকে না। এর মধ্য দিয়ে আপনি আপনার কর্মজীবনে প্রবেশ করছেন, এর মাধ্যমে আপনার নেতৃত্ব দেওয়ার গুণাবলি তৈরি হচ্ছে।
এসময় উপস্থিত ছিলেনÑ জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের যুব সংগঠন বিষয়ক সম্পাদক খন্দকার আবদুল ওয়াহেদ, তথ্যায়ন ও গবেষণা সম্পাদক সাজিদ তৌহিদ, স্বাস্থ্য অধিকার ফোরাম চাঁপাইনবাবগঞ্জের ফোকাল পারসন ও প্রয়াসের কর্মসূচি ব্যবস্থাপক ফারুক আহমেদ, প্রয়াসের অফিসার শাহরিয়ার শিমুল, সহকারী কৃষি কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল ইমাম।
এছাড়া জেলা যুব ফোরামের সমন্বয়কারী রাফিউল ইসলাম, যুগ্ম সমন্বয়কারী মাসুমা খাতুন, তথ্যায়ন সম্পাদক স¤্রাট হোসেন, প্রচারাভিযান সম্পাদক জুবায়ের, গণমাধ্যম সম্পাদক ফাতিমা তুজ জোহরা, পাঠচক্র সম্পাদক সাহিনা আক্তার এবং উপজেলা যুব ফোরামের সমন্বয়কারী শ্যামল কুমার বাঁধন, যুগ্ম সমন্বয়কারী ফারিয়া ইসলাম দৃষ্টি, তথ্যায়ন সম্পাদক নাজিউর রহমান আদিত, গবেষণা সম্পাদক সামিউম বাসির, প্রচারাভিযান সম্পাদক প্রভাস কুমার, গণমাধ্যম সম্পাদক ডিপজল বর্মণ, পাঠচক্র সম্পাদক সোহাগী খাতুনসহ দুই ফোরামের অন্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।
সভাপতির বক্তব্যে প্রফেসর সুলতানা রাজিয়া বলেন, আমি মনে করি শিক্ষিত মানুষের প্রথম যে গুণটা থাকা উচিত তা হচ্ছে চিন্তা করার একটা শক্তি থাকতে হবে। চিন্তা করতে না পারলে আপনি শিক্ষিত হননি। শিক্ষিত মানুষ নিজেকে প্রকাশ করতে পারে। আমার যেটা মত সেটা যেন নির্দ্বিধায় প্রকাশ করতে পারি। তিনি বলেন, আপনারা সবাই শিক্ষিত এবং আপনারা একটা ফোরাম পেয়েছেন নিজেকে প্রকাশ ও বিকশিত করার। যদিও এটা ভলেনটিয়ার সার্ভিস; কিন্তু আপনি এটা টাকা দিয়েও পাবেন না। তিনি আরো বলেন, আমরা ভাগ্যবান যে বাংলাদেশ হেলথ ওয়াচ স্বাস্থ্য নিয়ে কাজ করার জন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জকে বেছে নিয়েছে। আর প্রয়াস মানবিক উন্নয়ন সোসাইটি যদি এগিয়ে না আসত তাহলে আমরা এখানে কাজ করতে পারতাম না।
যুবদের উদ্দেশ্যে তিনি আরো বলেন, আপনারা আপনার আশপাশের মানুষদের বলবেন, অসুস্থ হয়ে যাওয়াটা অপরাধ না। আমাদের স্বাস্থ্যের যতœ নেয়াটা সবচেয়ে ভালো কাজ। নিজের শরীরের যতœ নিজেকেই নিতে হবে।
বেলা আড়াইটায় দ্বিতীয় পর্বে জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ও নাচোল উপজেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভার শুরুতেই সব ফোরামের সদস্যদের পরিচয় পর্ব অনুষ্ঠিত হয়।
এ পর্বে জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের সহসভাপতি বাবর আলী, স্বাস্থ্যসেবা বিষয়ক সম্পাদক শাহনাজ পারভীন, সদস্য মাহবুব আলম, অ্যাডভোকেট শামসুল হোদা সুঠু ও আব্দুর রহিম এবং নাচোল উপজেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরামের সহসভাপতি তানজিলা খাতুন, স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠান বিষয়ক সম্পাদক আবদুর রহমান মানিক, প্রচার ও গণমাধ্যম বিষয়ক সম্পাদক মতিউর রহমান, সদস্য বিধান সিং, জয়শ্রী প্রামানিক, মজিদুল ইসলামসহ অন্যরা অংশ নেন।
উল্লেখ্য, স্থানীয় পর্যায়ে স্বাস্থ্য অধিকার ও স্বাস্থ্যসেবার মানোন্নয়নে জনসচেতনতা সৃষ্টি, স্বচ্ছতা তৈরি, জবাবদিহিতা বৃদ্ধি এবং সকল পর্যায়ে জনঅংশগ্রহণ নিশ্চিত করে স্বাস্থ্যসেবা খাতে টেকসই উন্নয়ন সহায়ক পরিবেশ সৃষ্টির লক্ষে কাজ করছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা ও নাচোল উপজেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরাম এবং যুব ফোরাম।