ঘর পেয়ে প্রধানমন্ত্রীর জন্য প্রাণখুলে দোয়া করলেন উপকারভোগীরা

14

চাঁপাইনবাবগঞ্জসহ দেশে একযোগে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের মাঝে মঙ্গলবার জমির দলিলসহ গৃহ হস্তান্তর কার্যক্রমের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রী ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। তাঁর নির্দেশনায় প্রতিটি জেলা ও উপজেলায় মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী, সংসদ সদস্য, বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারগণ নিজনিজ এলাকার উপকারভোগীদের হাতে জমির কবুলিয়ত দলিল ও অন্যান্য কাগজপত্রসহ গৃহের মালিকানা হস্তান্তর করেন।
এদিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলায় ৬১৬টি গৃহ হস্তান্তর কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়। ঈদের আগে জমিসহ গৃহ বা ঘর পেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্য উপকারভোগীরা প্রাণ খুলে দোয়া করেছেন। প্রতিনিধিদের পাঠানো সংবাদ :
নিজস্ব প্রতিনিধি : উপকারভোগীদের মাঝে গৃহগুলোর মালিকানা হস্তান্তর উপলক্ষে চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রান্তে জেলার সদর উপজেলা পরিষদে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইফফাত জাহানের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন, জেলা প্রশাসক এ কে এম গালিভ খান। বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক এমপি মো. আব্দুল ওদুদ, সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান তসিকুল ইসলাম তসি, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাসরিন আখতার। উপকারভোগীদের মাঝে বক্তব্য দেন, সেলিম রেজা ও ছবি খাতুন।
অনুষ্ঠানে উপজেলা ভুমি উন্নয়ন কর্মকর্তা আনিসুর রহমান, সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. মোজাফফর হোসেনসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।
সদর উপজেলায় ৩য় পর্যায়ে মোট ৭১টি ঘরের মধ্যে ৩০ টির জমির দলিলসহ মালিকানা হস্তান্তর করা হয়।
দলিল হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা হচ্ছে-দেশের একটি মানুষও যেন রাস্তা বা খোলা আকাশের নিচে জীবনযাপন না করে। এ লক্ষে মনবতার মা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সমাজে পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠী, প্রতিবন্ধীসহ ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জমিসহ ঘর নির্মাণ করে দিচ্ছেন। সরকারি জমি অবৈধ দখলকারীদের কাছ থেকে উদ্ধার করে গৃহহীনদের দেওয়া হচ্ছে।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে আব্দুল ওদুদ বলেন-জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার কাজে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।
জমি ও বাড়ির দলিল পেয়ে সদর উপজেলার ঝিলিম ইউনিয়নের বাবুডাইং জটকা পাড়ার সেলিম রেজা তার অনুভুতি ব্যক্ত করে বলেন, ঈদের উপহার হিসাবে শেখ হাসিনা আমাকে মাথা গোঁজার ঠাঁই করে দিলেন, কোনদিন ভাবতে পারিনি নিজের একটা ঘর হবে, আজ স্বপ্ন পুরন হলো,আল্লাহ শেখ হাসিনাকে দেশের কল্যাণে দীর্ঘজীবী করুক। প্রতিবন্ধী লোকমান ও তার স্ত্রীর চোখে মুখে আনন্দ। শেষ বয়সে একটা ঠিকানা খুঁজে পাওয়ার আনন্দে তারা শুধু বঙ্গবন্ধু কন্যার জন্য দোয়া করছিলেন,আল্লাহ ভলো রাখুক শেখ হাসিনাকে।
সদর উপজেলার ৭১ টি ঘরের মধ্যে ঝিলিম ইউনিয়নে ১৩ টি, বালিডাঙ্গায় ৭ টি, গোবরাতলায় ১০টি সম্পন্ন হওয়া গৃহের দলিল হস্তান্তর করা হয়।
গোমস্তাপুর: চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুরে ভূমিহীন ও গৃহহীন ৫০টি পরিবারের মাঝে জমির দলিল হস্তান্তর করা হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে গোমস্তাপুর উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা সভাকক্ষে এক সভার আয়োজন করা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার আসমা খাতুনের সভাপতিত্বে আয়োজিত সভায় বক্তব্য দেন সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জিয়াউর রহমান, উপজেলা চেয়ারম্যান হুমায়ুন রেজা, রহনপুর পৌর মেয়র মতিউর রহমান খাঁন, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) শাহরিয়ার নজির, গোমস্তাপুর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শামছুল আজম, গোমস্তাপুর থানার (ওসি) দিলীপ কুমার দাস, চৌডালা ইউপি চেয়ারম্যান গোলাম কিবরিয়া হাবিব, সাবেক কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা কামাল, উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আতিকুল ইসলাম আজম প্রমূখ।
প্রধানমন্ত্রীর উপহারের বাড়ি পেয়ে উপকারভোগী টায়েরা খাতুন বলেন, ঈদের আগে বাড়ি পাওয়ায় নতুন বাড়িতে ঈদটা ভালো করে কাটাতে পারবো। পরের বাড়িতে খুব কষ্ট করে ছিলাম। এখন নিজের বাড়িতে থাকতে পারবো। সেজন্য আমি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি ও তার সুস্বাস্থ্য কামনা করছি।
শিবগঞ্জ : চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিবগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের মাঝে জমি ও গৃহ হস্তান্তর অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার এ উপলক্ষে শিবগঞ্জ উপজেলা হল রুমে এক আলোচনা ও দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। শিবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাকিব-আল-রাব্বি’র সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. জাকিউল ইসলাম। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, শিবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সৈয়দ নজরুল ইসলাম, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান গোলাম কিবরিয়া, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শিউলি বেগম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) আরিফা সুলতানা, শিবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ চৌধুরী জোবায়ের আহমেদ, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা প্রকৌশলী আরিফুল ইসলাম, কৃষি কর্মকর্তা শরিফুল ইসলাম ও যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা মিজানুর রহমান প্রমুখ। শিবগঞ্জ উপজেলায় ১১৬ টির মধ্যে আজকে ৬০টি পরিবারের মাঝে বাড়ি ও জমির কাগজপত্র হস্তান্তর করা হয়।