ক্লাবের নাম ‘লেডিস গ্যাং’

15

রাস্তার মোড়ে একটি গাছের নিচে বসে আছে বিথী; তার সঙ্গে আরো কয়েকজন তরুণী। সবার পরনে জিন্স-ফতোয়া। চোখে রোদচশমা। গলায় মোটা চেইন। বিথী মাঝে মধ্যে উঠে পায়চারি করছে। সবার মাঝে উত্তেজনা কাজ করছে। মনে হচ্ছে, কারো জন্য অপেক্ষা করছে তারা। এমন সময় দৌড়ে গিয়ে একজন লোককে টেনে হেঁচড়ে গাছের নিচে নিয়ে যায় তারা। এই লোকের অপরাধ-সে তার বউকে মেরেছে। বিথীর একটি ক্লাব আছে। ক্লাবের নাম ‘লেডিস গ্যাং’। মাদক, ছিনতাই, চাঁদাবাজি, বউ পেটানোসহ নারী বিদ্বেষী কাজ যে সকল মানুষ মহল্লায় করে; তাদের শায়েস্তা করে বিথী। অন্যদিকে মাহিন খুব শান্ত স্বভাবের ছেলে। বিথীকে পছন্দ করে না। বিথী যে রাস্তায় আড্ডা দেয়, সেই রাস্তা দিয়েও সে যাতায়াত করে না। কিন্তু বিথী মাহিনকে পছন্দ করে।

বিথী প্রেমিকার মতো অবাক হয়ে মাহিনের দিকে তাকিয়ে থাকে। এমন সময় একটি গাড়ি থেকে অপরিচিত একজন বিথীকে গুলি করে; কিন্তু সেটা গিয়ে লাগে মাহিনের পিঠে। তারপর গল্প মোড় নেয় ভিন্ন দিকে। এমন গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে একক নাটক ‘লেডিস গ্যাং’। মিজানুর রহমান বেলাল রচিত এ নাটক পরিচালনা করেছেন জহির খান। নাটকটির বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয়ে করেছেনÑফারজানা মিহি, ফরহাদ বাবু, লামিয়া লিপা, মিলি বাসার, রকি খান, স্বপ্নীন রনো, আলমগীর হোসেন, জহির খান, আহমেদ জিসান প্রমুখ। নির্মাতা জহির খান বলেন, ‘গল্পটি অনেক ভালো। সমাজের বখাটে মেয়েদের গ্যাং নিয়ে মেসেজ উঠে এসেছে। নির্মাণও ভালো করার চেষ্টা করেছি। খুব শিগগির একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে প্রচার হবে এটি।’