করাচির নাগরিক আন্দোলনকারীরা সিন্ধুর মুখ্যমন্ত্রীকে ‘ঘুমন্ত সুন্দরী’ বললেন

70

09

পাকিস্তানের বন্দরনগরী করাচির প্রতিদিনের নাগরিক সমস্যার প্রতি কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ এবং তা নিরসনের জন্য ব্যতিক্রমধর্মী কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। ‘আইডিয়াস আর বুলেটপ্র”ফ’ নামের প্রচার তৎপরতার অংশ হিসেবে এ কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়।
এ কর্মসূচির নেতৃত্ব দিচ্ছেন সমাজসেবক আলগীর খান। তিনি বলেন, সংঘবদ্ধভাবে এ কর্মসূচি চালানো হচ্ছে এবং এতে কাজ করছেন করাচির সাধারণ মানুষ।
এর আওতায় নগরীর বেহাল হয়ে পড়া গুর”ত্বপূর্ণ সড়ক এবং আর্বজনাপূর্ণ এলাকাগুলোর কাছে সিন্ধুর মুখ্যমন্ত্রী কাইম আলী শাহ’র ছবি একে রাখা হচ্ছে। পাশাপাশি তা নিরসনের দাবি সংবলিত শ্লোগানও লিখে রাখা হচ্ছে। এ রকম একটি ক্ষেত্রে সিন্ধুর মুখ্যমন্ত্রীকে বিদ্রƒপ করে ‘স্লিপিং বিউটি’ বা ‘ঘুমন্ত সুন্দরী’ বলেও উল্লেখ করা হয়েছে।
পাকিস্তানের সিন্ধু প্রদেশের সবচেয়ে গুর”ত্বপূর্ণ নগরী করাচির নাগরিক সংকট নিরসনে মুখ্যমন্ত্রীর অক্ষমতা এবং অনীহার প্রতি ইংগিত করেই তাকে ‘ঘুমন্ত সুন্দরী’ বলে অভিহিত করা হয়। এভাবে ছবি ও শ্লোগানের মধ্য দিয়ে কর্তৃপক্ষকে করাচির সমস্যা সমাধানে তৎপর করার চেষ্টা চালানো হচ্ছে।
আলগীর খান বলেন, করাচির সাধারণ মানুষ কি দুর্ভোগে পড়েন সে সম্পর্কে সিন্ধুর নেতাদের কোনো ধারণাই নেই। কারণ তারা অভিজাত এলাকায় বসবাস করেন এবং সে সব এলাকায় এ ধরনের সংকটে অস্তিত্ব নেই বললেই চলে।