এড়িয়ে চলুন জুতা ব্যবহারের ৬টি ভুল

132

02পা ও কাজের ধরন বুঝে জুতা নির্বাচন করা উচিত। এর ফলে কাজ খুব সহজে ও আরামে সম্পন্ন করা যায়। জীবনযাপন-বিষয়ক ওয়েবসাইটে প্রকাশিত এক প্রতিবেদন থেকে পায়ের উপযোগী জুতা সম্পর্কে ধারণা পাওয়া যায়। বিশ্বনন্দিত অভিনেত্রী মেরিলিন মনরর বিখ্যাত উক্তি, “একজন মেয়েকে ঠিক জুতা দিলে, সে বিশ্ব জয় করতে পারবে।” তিনি হয়ত এখানে দেখতে সুন্দর জুতার কথা বলেননি বরং হতে পারে পায়ের জন্য উপযোগী জুতার কথা বলেছেন। মুম্বাইয়ের প্রসিদ্ধ শরীরচর্চা প্রশিক্ষক মুস্তাফা আহমেদ বলেন, “ব্যায়াম করার জন্য সব চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অংশ হচ্ছে জুতা। কেননা সারা শরীরের ভর পা তথা জুতার উপরে পড়ে।”
স্পোর্টস ও মেডিসিনের ভারতীয় বিশেষজ্ঞ ডা. পুষ্পেন্দর বাজাজের মতে, “প্রতিটি খেলা বা ব্যায়ামের ধরন ভিন্ন। তাই প্রতিটি কাজের জন্যই ভিন্ন ধরনের জুতা তৈরি করা হয়।”
ডা. বাজাজ বলেন, “ভালো ব্রান্ডের জুতা ব্যবহার করা উচিত। কেননা এরা নানা গবেষণার মাধ্যমে জুতা তৈরি করে থাকে। তবে যত ভালো ব্র্যান্ডের জুতাই ব্যবহার করা হোক না কেনো তা এক বছরের বেশি টেকেনা। যদি আপনি সপ্তাহে পাঁচবার দৌড়ান তবে প্রতি ছয় থেকে নয় মাস পর অথবা ৫০০ মাইল দৌড়ানোর পর জুতা পরিবর্তন করা উচিত। এবং যারা হাঁটেন তাদের এক বছরের বেশি জুতা ব্যবহার করা ঠিক না।
জুতা ব্যবহারের ৬টি ভুল এড়িয়ে চলুন
পুরোনো জুতা পরে নতুন ব্যায়াম শুরু করা: নতুন ব্যায়াম শুরু করার ক্ষেত্রে পুরানো জুতা ব্যবহার না করা ভালো। অনেক সময় এটি আগের মতো ভালো কাজে নাও আসতে পারে।
সব জায়গায় একই জুতা না পরা: ব্যায়াম করার জুতা কেবল মাত্র ব্যায়াম করার সময়ই পরা উচিত। সব জায়গায় ব্যায়াম করার জুতা পরার ফলে ব্যায়ামের উপযোগী জুতাটি খুব তাড়াতাড়ি নষ্ট হয়ে যায়।
সব কাজের জন্যই আলাদা জুতা ব্যবহার: প্রত্যেকটি জুতার নির্দিষ্ট কাজ আছে। জিমের জন্য উপযোগী জুতা যে অন্য ক্ষেত্রের জন্যও সমান উপযোগী হবে তা ঠিক নয়। তাই যে কোনো কাজের গুরুত্ব বা তীব্রতা বুঝে সেই অনুযায়ী জুতা নির্বাচন করা উচিত।
যখন তখন জুতা পরিবর্তন না করা: ব্যায়াম করার জুতা সাধারণত এক বছর টেকে। বিশেষজ্ঞদের মতে, রানারদের (দৌড়বিদ) প্রতি ৫০০ মাইল পর জুতা পরিবর্তন করতে হয়। আপনার জুতা সপ্তাহে পাঁচ দিন ব্যায়ামের জন্য ব্যবহার করে থাকেন, তবে নিশ্চিন্তে তা এক বছর ব্যবহার করতে পারবেন।
একই মাপের জুতা পরা: প্রতি বছরেই জুতার মাপ পর্যবেক্ষণ করা উচিত। বলা হয়ে থাকে যে, বয়স বাড়ার সঙ্গে পায়ের মাপও বাড়তে থাকে।
ডিপার্টমেন্ট স্টোর থেকে জুতা কেনা: দর কষাকষির কথা বিবেচনা করে বহু ব্র্যান্ড ভিত্তিক দোকান থেকে জুতা কেনা ঠিক নয়। খেলার সামগ্রী বিক্রি করে এরকম দোকান থেকে বিশেষজ্ঞের পরামর্শ অনুযায়ী জুতা কেনা উচিত। পা পর্যবেক্ষণ করে, এরজন্য কোন ধরনের জুতা ঠিক হবে তা নির্বাচন করা প্রয়োজন।