দৈনিক গৌড় বাংলা

শনিবার, ১৮ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১০ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

ইতিহাস গড়লেন নর্থইস্ট

৫২৫ মিনিট, ৪১২ বল, ৩৩৫ রান, লর্ডস। কিছু সংখ্যা ও তথ্য, আর দারুণ কিছু ইতিহাস! প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ৪১০ রানের ইনিংস আগে খেলেছেন স্যাম নর্থইস্ট। তবে এবার ৩৩৫ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলার পথে তিনি যা করলেন, তা করতে পারেননি ইতিহাসের আর কেউ। এই ইংলিশ ব্যাটসম্যান তোলপাড় ফেলে দিলেন রেকর্ড বইয়ে। কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপের নতুন মৌসুমের প্রথম রাউন্ডে লর্ডসে মিডলসেক্সের বিপক্ষে এই ইনিংস উপহার দেন গ্ল্যামরগনের নর্থইস্ট। তার নাম খোদাই হয়ে যায় রেকর্ড বইয়ে। শুক্রবার ম্যাচ শুরুর দিন সপ্তম ওভারে তিনি ক্রিজে যান দল প্রথম উইকেট হারানোর পর। দিন শেষে অপরাজিত থাকেন ১৮৬ রান করে। দ্বিতীয় দিনে যখন দল ইনিংস ঘোষণা করে ৩ উইকেটে ৬২০ রানে, নর্থইস্টের নামের পাশে তখন জ্বলজ্বল করছে অপরাজিত ৩৩৫।

কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপের ১৩৪ বছরের ইতিহাসে ৬ এপ্রিলের আগে ট্রিপল সেঞ্চুরি করতে পারেননি আর কোনো ব্যাটসম্যান। এপ্রিল মাসে তিনশ রানের ইনিংস খেলতে পেরেছিলেন আগে কেবল আর দুজন- ২০০৭ সালে অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান জাস্টিন ল্যাঙ্গার ও ২০০৯ সালে ইংলিশ ব্যাটসম্যান জেমস হিলড্রেথ। এরপর তিনি ছাড়িয়ে যান ইংলিশ ক্রিকেটের বিখ্যাত একটি ইনিংসকে। ১৯৯০ সালে ভারতের বিপক্ষে টেস্টে লর্ডসে ৩৩৩ রানের ইনিংস খেলেছিলেন গ্রাহাম গুচ। ক্রিকেটের সবচেয়ে বিখ্যাত মাঠে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ রানের ইনিংস এতদিন ছিল এটিই। এবার সেটিকে ছাড়িয়ে গেলেন নর্থইস্ট। ক্রিকেটতীর্থ বলে খ্যাত মাঠে ২ হাজার ৮০০-এর বেশি প্রথম শ্রেণির ম্যাচে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত সংগ্রহ এখন ৩৪ বছর বয়সী এই ব্যাটসম্যানের। একেবারে নিখুঁত ছিল না ইনিংসটি।

ম্যাচের প্রথম সকালে ১১ রানে জীবন পান তিনি। পরদিন ২৩৯ ও ২৯১ রানে জীবন পান আবার। শেষ পর্যন্ত ৩৬ চার ও ৬ ছক্কার ইনিংসে ৮১.৩১ স্ট্রাইক রেটে রান তুলে আর আউট হননি তিনি। কখনও ইংল্যান্ডের হয়ে খেলার সুযোগ না পাওয়া ব্যাটসম্যানদের মধ্যে তার প্রজন্মের সেরা ব্যাটসম্যানদের একজন মনে করা হয় তাকে। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে তার ৩০তম সেঞ্চুরি এটি। এই ইনিংসের পথে পেরিয়ে গেছেন ১৩ হাজার রান। ম্যাচের প্রথম দিন নর্থইস্টের সঙ্গে ১২৯ রানের জুটি গড়েন বিলি রুট। জো রুটের ছোট ভাই বিলি আউট হন ৬৭ রান করে। পরে কিরান কার্লসনের সঙ্গে নর্থইস্টের জুটি হয় ১৭৬ রানের, কলিন ইনগ্রামের সঙ্গে অবিচ্ছিন্ন জুটি ২৯৯ রানের। দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান ইনগ্রাম অপরাজিত থাকেন ১৩২ রান করে। এমন কীর্তি গড়তে পেরে স্বাভাবিকভাবেই উচ্ছ্বসিত নর্থইস্ট।

“এখানে খেলতে পারাই সম্মানের। এই রেকর্ড গড়তে পারা তো আমার সুদূরতম স্বপ্নেও ছিল না সত্যি বলতে। আমি নিজেই স্রেফ হাওয়ায় ভাসছি। মাইলফলকের কাছাকাছি গিয়ে নার্ভাসও লাগছিল।” “৩৩০ রান হওয়ার আগ পর্যন্ত এটা নিয়ে ভাবিনি আমি (গুচের রেকর্ড)। একজন আমাকে বলেছিলেন রেকর্ডের কথা, তবে আমি ঠিক মনে করতে পারছিলাম না। তবে কাছাকাছি গিয়ে আবার এটার কথা ভাবতে শুরু করি। স্পেশাল একটি দিন এটি।”

About The Author

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *