ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি প্রাইজমানি পাচ্ছেন মেসিরা

6

বিশ্বকাপ মানেই টাকার ছড়াছড়ি। এবার কাতারে তো হয়ে গেল ইতিহাসের সবচেয়ে ব্যয়বহুল বিশ্বকাপ। স্বভাবতই এতে টাকার ছড়াছড়ি অন্য যে কোনোবারের চেয়ে বেশি।
ফিফার তথ্যমতে, কাতার বিশ্বকাপে এবার মোট প্রাইজমানি ছিল ৪৪০ মিলিয়ন ইউএস ডলার। বাংলাদেশী মুদ্রায় যা কিনা ৪ হাজার ৬০০ কোটি টাকার মতো।
চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনা দল পাচ্ছে ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি প্রাইজমানি। শিরোপাজয়ী দলের জন্য বরাদ্দ ৪২ মিলিয়ন ইউএস ডলার। বাংলাদেশী মুদ্রায় যা প্রায় ৪৩৯ কোটি টাকা।
২০১৮ বিশ্বকাপ জেতা ফ্রান্স পেয়েছিল আর্জেন্টিনার চেয়ে ৪ মিলিয়ন কম, ৩৮ মিলিয়ন ইউএস ডলার। এবার তারা হয়েছে রানারআপ। আর্থিক পুরস্কার হিসেবে পাচ্ছে ৩০ মিলিয়ন ইউএস ডলার (প্রায় ৩১৩ কোটি টাকা)।
তৃতীয় হয়েছে ক্রোয়েশিয়া। তারা পাচ্ছে ২৭ মিলিয়ন ইউএস ডলার (প্রায় ২৮২ কোটি টাকা)। চতুর্থ হওয়া মরক্কো পাচ্ছে ২৫ মিলিয়ন ইউএস ডলার (প্রায় ২৬১ কোটি টাকা)।
কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বাদ পড়া চার দল পাবে ১৭ মিলিয়ন ইউএস ডলার করে (প্রায় ১৭৭ কোটি টাকা)। শেষ ষোল থেকে বাদ পড়া আট দল পাবে ১৩ মিলিয়ন ইউএস ডলার করে (প্রায় ১৩৫ কোটি টাকা)।
গ্রুপ পর্ব থেকে বাদ পড়া বাকি ১৬ দল পাবে ৯ মিলিয়ন ডলার করে (প্রায় ৯৪ কোটি টাকা)। এখানে তিন ম্যাচে জেতা কিংবা হারা সব দলই পাবে সমান অর্থ।