ইউনাইটেডকে হারিয়ে শেষ আট নিশ্চিত করলো আতলেতিকো

5

আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণে ম্যাচ জুড়ে ছড়াল উত্তেজনা। দুই দলই পেল ভালো কিছু সুযোগ। উভয় গোলরক্ষক করলেন দারুণ কয়েকটি সেভ। এর মাঝে ব্যবধান গড়ে দিলেন রেনান লোদি। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের কোয়ার্টার-ফাইনালে উঠল আতলেতিকো মাদ্রিদ। ইউরোপ সেরার মঞ্চে ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার লোদির প্রথম গোলের উপলক্ষটা দারুণ জয়ে স্মরণীয় হয়ে থাকল। ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে মঙ্গলবার রাতে শেষ ষোলোর ফিরতি লেগে ১-০ গোলে জিতে দুই লেগ মিলিয়ে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে পরের ধাপে পা রাখল দিয়েগো সিমেওনের দল। মাদ্রিদে প্রথম লেগ ১-১ গোলে ড্র হয়েছিল। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের নকআউট পর্বে প্রথম লেগে ড্র করলেই বিদায়, হতাশার এই ধারা আরও লম্বা হলো ম্যানচেস্টারের দলটির।

এই নিয়ে টানা চারবার এই তেতো অভিজ্ঞতা হলো তাদের। ২০১২-১৩ মৌসুমে শেষ ষোলোয় রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে, ২০১৩-১৪ মৌসুমে কোয়ার্টার-ফাইনালে বায়ার্ন মিউনিখের বিপক্ষে ও ২০১৭-১৮ মৌসুমে শেষ ষোলোয় সেভিয়ার বিপক্ষে এভাবে হেরে বিদায় নিয়েছিল তারা। তিন দিন আগে প্রিমিয়ার লিগে টটেনহ্যাম হটস্পারের বিপক্ষে অসাধারণ এক হ্যাটট্রিক করা ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর কাছ থেকে আরও একবার দারুণ কিছুর প্রত্যাশায় ছিলেন ইউনাইটেড কোচ রালফ রাংনিক। তবে চেনা রূপে দেখা যায়নি পর্তুগিজ মহাতারকাকে, পুরো ম্যাচেই নিজের ছায়া হয়ে ছিলেন তিনি। আগের দিন আতলেতিকো কোচ সিমেওনে বলেছিলেন, ম্যাচের শুরু থেকে আক্রমণের পসরা মেলে ধরতে চান তারা। প্রথমার্ধে তার প্রমাণও মেলে। পরের ধাপে অবশ্য নিজেদের চিরচেনা রক্ষণাত্মক ফুটবল খেলে ইউনাইটেডকে আটকে রাখে স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়নরা।

প্রথম লেগে বদলি নেমে শেষ দিকে গোল করে ইউনাইটেডকে পরাজয়ের হাত থেকে বাঁচিয়েছিলেন যিনি, সেই এন্থনি এলেঙ্গা এবার শুরুর একাদশে নেমে ত্রয়োদশ মিনিটে সুবর্ণ সুযোগ হাতছাড়া করেন। ব্রুনো ফের্নান্দেসের ক্রসে কাছ থেকে তরুণ সুইডিশ ফরোয়ার্ডের প্রচেষ্টা মাথা দিয়ে রুখে দেন গোলরক্ষক ইয়ান ওবলাক। দুই মিনিট পর দুর্দান্ত এক সেভ করে ইউনাইটেডের ত্রাতা দাভিদ দে হেয়া। ২৫ গজ দূর থেকে আর্জেন্টাইন মিডফিল্ডার রদ্রিগো দে পলের জোরাল শট ঝাঁপিয়ে এক হাতে ব্যর্থ করে দেন স্প্যানিশ গোলরক্ষক। ৩৪তম মিনিটে আতলেতিকোর জোয়াও ফেলিক্স জালে বল পাঠালেও গোল মেলেনি, অফসাইডে ছিলেন তাকে বল বাড়ানো মার্কোস ইয়োরেন্তে। এর ছয় মিনিট পর এগিয়ে যাওয়ার উল্লাসে ফেটে পড়ে সফরকারীরা। ফেলিক্সের ব্যাকহিল ফ্লিকে বল পেয়ে বক্সের ডান দিক থেকে দূরের পোষ্টে ক্রস বাড়ান অঁতোয়ান গ্রিজমান।

আর হেডে গোলটি করেন লোদি। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ২৫তম ম্যাচে প্রথম গোলের স্বাদ পেলেন ২৩ বছর বয়সী এই ফুটবলার। বিরতির আগে ডি-বক্সের বাইরে থেকে চেষ্টা করেন ফের্নান্দেস। পর্তুগিজ মিডফিল্ডারের নিচু শট বাঁ দিকে ঝাঁপিয়ে ঠেকান ওবলাক। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে আরেকটি সুযোগ পান এলেঙ্গা। ফের্নান্দেসের ব্যাকহিল ফ্লিকে বল পেয়ে একজনের বাধা এড়িয়ে তার শট পোস্টের বাইরে দিয়ে যায়। ৫২তম মিনিটে দে পলের শট ঠেকান দে হেয়া। ৬৭তম মিনিটে একসঙ্গে তিনটি পরিবর্তন আনেন ইউনাইটেড কোচ রালফ রাংনিক। নেমানিয়া মাতিচ, এলেঙ্গা ও ফের্নান্দেসের জায়গায় নামেন স্কট ম্যাকটমিনে, মার্কাস র‌্যাশফোর্ড ও পল পগবাকে। ৭৭তম মিনিটে আরেকটি দারুণ সেভে স্বাগতিকদের হতাশ করেন ওবলাক।

ফ্রি-কিকে অনেকটা লাফিয়ে রাফায়েল ভারানের হেড এক হাতে ফিরিয়ে দেন তিনি। ফিরতি বলে রোনালদোর ওভারহেড কিকও ঠেকান। যদিও অফসাইডে ছিলেন সাবেক রিয়াল মাদ্রিদ ফরোয়ার্ড। বাকি সময়ে আক্রমণে আধিপত্য করেও গোল আর পাওয়া হয়নি ইউনাইটেডের। তাই ঘরের মাঠে হেরে ইউরোপ থেকে বিদায় নিতে হয় তাদের। আরেক ম্যাচে আয়াক্সকে তাদের মাঠেই ১-০ ব্যবধানে হারিয়ে দুই লেগ মিলিয়ে ৩-২ গোলের অগ্রগামিতায় কোয়ার্টার-ফাইনালে উঠেছে বেনফিকা। এই নিয়ে চতুর্থ ও ২০১৫-১৬ মৌসুমের পর প্রথমবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ আটে উঠল পর্তুগিজ দলটি। আগে কখনই শেষ আট পার হতে পারেনি তারা।