আলোচনায় ‘ফ্লোর নম্বর ৭’

4

টেলিভিশন, সিনেমা হল, ইউটিউব, ফেসবুক আর ওটিটি মিলিয়ে হাজারেরও বেশি কনটেন্ট উন্মুক্ত হয়েছে এবারের ঈদে। তবে সবকিছু ছাপিয়ে এরমধ্যে তুমুল আলোচনায় এসেছে রায়হান রাফির অন্তর্জাল সিনেমা ‘ফ্লোর নম্বর ৭’। ঈদের দিন রাত ৮টায় ছবিটি মুক্তি দিলো চরকি। এতে অভিনয় করেছেন শাহরিয়ার নাজিম জয়, শবনম বুবলী, রাজ মানিয়ে, তমা মির্জা, সুমন আনোয়ার প্রমুখ। দুদিন ধরে ছবিটির প্রতিটি চরিত্রই আলোচনায় উঠে এসেছে অন্তর্জালে। বিশেষ করে লম্বা উপস্থাপনা ক্যারিয়ার পেরিয়ে অভিনেতা জয়ের এমন প্রত্যাবর্তনে বিস্মিত বেশিরভাগ দর্শক।

বিএফডিসির ৭ নম্বর ফ্লোরে নকল পিস্তলের গুলিতে মারা যান জনপ্রিয় চিত্রনায়ক সাদমান চৌধুরী। থমথমে শুটিং ফ্লোরে হত্যাকা-ের তদন্তে একে একে বেরিয়ে আসে চাঞ্চল্যকর সব তথ্য। নকল পিস্তলের জায়গায় আসল পিস্তল অদলবদল করলো কে? কী-বা হতে পারে হত্যার উদ্দেশ্য? এসব প্রশ্নের শ্বাসরুদ্ধকর উত্তর মিলবে ‘ফ্লোর নম্বর ৭’ দেখলেই। চরকির প্রধান পরিচালন কর্মকর্তা রেদওয়ান রনি বলেন, ‘প্রতি উৎসবেই চরকির সাবস্ক্রাইবার বাড়ে। কিন্তু এই ঈদে সাবস্ক্রাইবার বেড়েছে অন্যান্য সময়ের চেয়ে আড়াই গুণ বেশি। আমরা চেয়েছিলাম ঈদটা মানুষ ফান-ফুর্তির মধ্য দিয়েই চরকির সঙ্গে উযাপন করুক। পুরনো দর্শকদের সঙ্গে আমাদের সঙ্গে এবার যুক্ত হয়েছেন বিপুল পরিমাণ নতুন দর্শক। মানুষ একসময় সিনেমা হলে টিকিট কেটে সিনেমা দেখতেন, এখন তাদের অনেকেই চরকি সাবস্ক্রাইব করেছেন। এটা একদিক থেকে আমাদের জন্য আনন্দের, অন্যদিকে বাংলাদেশের বিনোদন ইন্ডাস্ট্রির জন্য দারুণ ইতিবাচক।’