আবার বিসিবি পরিচালক নাঈমুর

36

এই মাত্র খবর এলো, দুর্জয় ভাই জিতে গেল”, “ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে, লাল গোলাপ শুভেচ্ছা, মানিকগঞ্জবাসীর পক্ষ থেকে লাল গোলাপ শুভেচ্ছা”-মঙ্গলবার বিকেলে এরকম নানা স্লোগানে মুখরিত বিসিবি প্রাঙ্গন। মাত্র তিনটি পদে নির্বাচন। কৌতুহল, উত্তাপ, উত্তেজনা ছিল মূলত নাঈমুর রহমানকে (দুর্জয়) ঘিরেই। শেষ পর্যন্ত সারাদিনের উৎকণ্ঠা শেষে নাঈমুরের সমর্থকদের কণ্ঠে বিজয়ের স্লোগান। আবারও বিসিবি পরিচালক নির্বাচিত হয়েছেন বাংলাদেশের প্রথম টেস্ট অধিনায়ক। নাঈমুরের সঙ্গে বেসরকারিভাবে পরিচালক নির্বাচিত হয়েছেন কিশোরগঞ্জের সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম ও বরিশালের আলমগীর খান আলো। বিসিবির ২৫ পরিচালকের ২০ জনের বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়া নিশ্চিত হয়েছে আগেই। জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের মনোনয়নে পরিচালক হয়েছেন আহমেদ সাজ্জাদুল আলম ববি ও এনায়েত হোসেন সিরাজ। বাকি তিনটি পদে নির্বাচন হয়েছে মঙ্গলবার, বিসিবি কার্যালয়ে। নির্বাচন হয়েছে ঢাকা বিভাগের দুটি ও বরিশাল বিভাগের একটি পরিচালক পদে। ঢাকা বিভাগের দুটি পদের জন্য প্রার্থী ছিলেন চারজন। ভোট ছিল ১৮টি। নাঈমুর ও আশফাকুল, উভয়ই পেয়েছেন ১৩টি করে ভোট। বরিশালে প্রার্থী ছিলেন দুজন, ভোট ৭টি। ৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন আলমগীর। গত পরিচালনা পর্ষদের অন্যতম পরিচালক এম এ আওয়াল চৌধুরী এবার হেরে গেছেন। নির্বাচিত ২৫ পরিচালকের ভোটে নির্বাচিত হবে বিসিবির নতুন সভাপতি। বুধবারই বিসিবির সভায় নির্বাচন করা হবে নতুন সভাপতি। বর্তমান সভাপতি নাজমুল হাসানের বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়া একরকম নিশ্চিত।