আইপিএম মডেল ইউনিয়ন বোয়ালিয়ায় কমলারঞ্জন দাশ

13

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের ২০২২-২৩ অর্থবছরে পরিবেশবান্ধব কৌশলের মাধ্যমে নিরাপদ ফসল উৎপাদন প্রকল্পের (১ম সংশোধিত) আওতায় চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুর উপজেলার বোয়ালিয়া ইউনিয়নকে আইপিএম মডেল ইউনিয়ন হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে আইপিএম মডেল ইউনিয়নের কার্যক্রম বিষয়ে কৃষকদের সঙ্গে কৃষি কর্মকর্তারা মতবিনিময় করেছেন।
উপজেলা কৃষি অফিসের আয়োজনে আলমপুর বাজারে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন গোমস্তাপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা তানভীর আহমেদ সরকার।
প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন কৃষি মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (পিআরএল) কমলারঞ্জন দাশ। বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন- কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর খামারবাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জের উপপরিচালক ড. পলাশ সরকার, চাঁপাইনবাবগঞ্জ হর্টিকালচার সেন্টারের উপপরিচালক বিমল কুমার প্রামানিক। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেনÑ নাচোল উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা বুলবুল আহমেদ, গোমস্তাপুর উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা ফিরোজ আলী, কৃষক আব্দুল আওয়াল ও লিমা আক্তার।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন- উপ-সহকারী উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা সেরাজুল ইসলাম, উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা রাকীব উদ্দীন ও ফজলুর রহমানসহ কৃষকরা।
প্রধান অতিথি কমলারঞ্জন দাশ বলেন, সারাদেশের ২০টি উপজেলার মধ্যে গোমস্তাপুর উপজেলার বোয়ালিয়া ইউনিয়নকে আইপিএম মডেল হিসেবে ঘোষণা করা হয়। আপনাদের ভাগ্য আপনাদের গড়তে হবে। আমরা আপনাদের ভাগ্যের পরিবর্তন করার চেষ্টা করছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বলেছেন এদেশে এক ইঞ্চি জমি যেন খালি না থাকে। করোনাকালীন কৃষি বিভাগের ৪৪ জন কর্মকর্তা মারা গেছেন। আমরা চেষ্টা করি, সীমিত সম্পদের মধ্যে কেউ যেন অনাহারে না থাকে। আমরা চেষ্টা করছি নিরাপদ পুষ্টি সমৃদ্ধ খাবার তৈরি করার। কৃষকদের ভালো বীজ ও সার দেয়া হচ্ছে। তিনি বলেন, মাটি থেকে আমরা বেশি ফলন পেতে চাই, তাই অবশ্যই জৈব সার ব্যবহার করতে হবে। এ সার ব্যবহার করলে মাটির ভেতরে বায়ু চলাচলে করে। মাটি নরম থাকে, অক্সিজেন ভেতরে ঢুকে যায়। মাটির উর্বরা বৃদ্ধি পায়। রাসায়নিক সার ব্যবহার করে মাটির ক্ষতি সাধিত হয়। আইপিএম পদ্ধতি ব্যবহার করে আপনারা সবজি চাষাবাদে কম খরচে বেশি আয় করেছেন।
পরে তিনি আলমপুরে নিরাপদ সবজি উৎপাদন এলাকা পরিদর্শন করেন।
এদিকে উপজেলা কৃষি বিভাগ জানায়, বোয়ালিয়া বাজারে নিরাপদ সবজিবাজার তৈরি করা হবে।