অনুমোদনবিহীন হাসপাতালের ব্যাপারে কোনো ছাড় নয় : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

6

অনুমোদনবিহীন হাসপাতালের ব্যাপারে কোনো ছাড় দেয়া হবে না বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন।
তিনি বলেন, ‘লাইসেন্সবিহীন হাসপাতাল-ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও ক্লিনিক বন্ধ করে দিতে হবে। মালিকরা নিজেরা যদি বন্ধ না করে, তাহলে কঠিন পদক্ষেপ নেবে মন্ত্রণালয়।’
স্বাস্থ্যমন্ত্রী মঙ্গলবার দুপুরে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে আয়োজিত বাংলাদেশ হেলথ রিপোর্টার্স ফোরামের সাথে আয়োজিত এক মতবিনিময় অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন।
সামন্ত লাল সেন বলেন, ‘আমি নিজেও লাইসেন্সবিহীন হাসপাতালের ভুক্তভোগী। সুতরাং আমি কখনোই এ বিষয়ে ছাড় দেব না। আপনারা জানেন, এরই মধ্যে আমি বলেছি দুর্নীতির বিরুদ্ধে আমার অবস্থান কঠোর থাকবে। তেমনি অনুমোদনবিহীন হাসপাতালের ব্যাপারেও ছাড় দেওয়া হবে না।
করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট প্রসঙ্গে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেশ থেকে এখনো করোনা যায়নি। বিশেষ করে নতুন ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে আমাদের সতর্ক থাকতে হবে। তিনি করোনা বেড়ে যাওয়ায় ঝুঁকিপূর্ণ জনগোষ্ঠীকে জনসমাগম এড়িয়ে চলা ও সবাইকে মাস্ক ব্যবহারের পরামর্শ দেন।
অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব জাহাঙ্গীর আলম বলেন, গ্যাভির মাধ্যমে সরকার করোনার টিকা সংগ্রহের কাজ শেষ করেছে। এই টিকা আগামী এপ্রিল মাস থেকে দেওয়া শুরু হবে। ২০২৪ সালে ১ কোটি ২৫ লাখ এবং ২০২৫ সালে ১ কোটি ২৫ লাখ মোট আড়াই কোটি মানুষকে চতুর্থ ডোজ হিসেবে এই টিকা দেওয়া হবে।
মতবিনিময় অনুষ্ঠানের শুরুতেই ফোরামের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে স্বাগত জানিয়ে বক্তব্য দেনÑ ফোরাম সভাপতি রাশেদ রাব্বি ও সাধারণ সম্পাদক মইনুল হাসান সোহেল।
মতবিনিময় সভায় স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের সচিব আজিজুর রহামান, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মো. খুরশিদ আলমসহ আরো অনেকে বক্তব্য দেন।
এর আগে আয়ানের মৃত্যুর সুষ্ঠু বিচারসহ চার দফা দাবি নিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে আসেন আয়ানের বাবা শামীম আহমেদ ও তার পরিবার। এসময় স্বাস্থ্যমন্ত্রীর কাছে আয়ানের বাবা সন্তানের মৃত্যুর ঘটনার বর্ণনা দেন।
এসময় শিশু আয়ানের মৃত্যু প্রসঙ্গে সামন্ত লাল সেন বলেন, শিশু আয়ানের মৃত্যু খুবই দুঃখজনক ঘটনা। আয়ানের মৃত্যুর ঘটনায় যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে। যতটুকু জানি, আগামীকাল (আজ বুধবার) তদন্ত কমিটি প্রতিবেদন দেবে। চিকিৎসায় যদি কোনো অবহেলা থাকে তাহলে কোনো ছাড় দেওয়া হবে না।